পরিবারের চার সদস্য প্রতিবন্ধী, তবুও মিলছে না ভাতা

শেখ খলিলুর রহমান, শরীয়তপুর থেকে
 | প্রকাশিত : ১৯ মার্চ ২০১৭, ১৬:০৫

পাঁচজনের পরিবার। এর মধ্যে চারজনই প্রতিবন্ধী। তবুও তাদের ভাগ্যে জুটছে না প্রতিবন্ধী ভাতা বা সরকারি কোনো দান-অনুদান। একজনের উপার্জনের টাকা দিয়ে কোনো রকম চলছে তাদের সংসার।

শরীয়তপুরের ডামুড্যা উপজেলার ইসলামপুর ইউনিয়নে এই পরিবারটি বাড়ি।

সরেজমিনে জানা যায়, ইসলামপুর ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ড তারা শিমুলিয়া গ্রামের পাঁচ সদস্যের সংসার দিনমজুর আবুল বাশার বেপারির। এর মধ্যে স্ত্রী রোশনারা বেগম (৫৫) দৃষ্টি প্রতিবন্ধী আর তিন সন্তান মাহাবুব (৩৫), টিপু (৩০) ও রুবেল বেপারি (২৫) শারীরিক প্রতিবন্ধী।

আবুল বাশার পেশায় কাঠমিস্ত্রী। প্রতিদিন কাজ করে পান তিনশ টাকা। পরিবারের চার সদস্য প্রতিবন্ধী হলেও কোনো ভাতা পাননি তিনি। এতে খুব কষ্ট করে চলতে হচ্ছে তার।

আবুল বাশার বেপারি ঢাকাটাইমসকে জানান, নির্বাচনের সময় অনেকেই এসে আশ্বাস দেন কিন্তু তা বাস্তবে রূপ পায় না। তিনি বলেন, ‘আমার বয়স হয়েছ, এখন আর আগের মতো কাজ করতে পারি না। কিন্তু কী করবো। ওদের বাঁচাতে আমার এখনো কাজ করতে হয়। স্ত্রী দৃষ্টি প্রতিবন্ধী ছিল, আল্লাহ আমার সন্তানদেরও শারীরিক প্রতিবন্ধী বানিয়েছে।’

স্থানীয় ইউপি সদস্য আলমগীর সরদার ঢাকাটাইমসকে বলেন, প্রতিবন্ধীদের জন্য আমাদের কাছে কোনো ভাতা এলে দিতে পারতাম। কিন্তু এমন কোনো ফান্ড আমাদের কাছে নেই।

ইসলামপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আমিনুদ্দিন ঢালী ঢাকাটাইমসকে বলেন, ‘আমার বিষয়টি জানা নেই। খোঁজ নিয়ে তাদের ভাতার ব্যবস্থা করবো।’

(ঢাকাটাইমস/১৯মার্চ/প্রতিনিধি/জেবি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত