কোটবাড়ীর সেই আস্তানায় কেউ নেই, আছে বিস্ফোরক

কুমিল্লা প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ৩১ মার্চ ২০১৭, ১৮:১২ | প্রকাশিত : ৩১ মার্চ ২০১৭, ১৮:০২

কুমিল্লার কোটবাড়ীতে জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে ঘিরে রাখা বাড়িটিতে কাউকে পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছে পুলিশ। তবে তিনতলা ওই বাড়ির ভেতরে বোমা থাকতে পারে এমন সন্দেহে বাড়িটিতে তল্লাশি চালানো হচ্ছে বলে জানিয়েছেন পুলিশের চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি শফিকুল ইসলাম।

শুক্রবার বিকালে শফিকুল ইসলাম ঢাকাটাইমসকে বলেন, সন্দেহভাজন ওই আস্তানায় কোনো জঙ্গিকে পাওয়া যায়নি। তবে বেশ কয়েকটি বোমা পাওয়া গেছে। সেগুলো নিষ্ক্রিয় করার কাজ চলছে। নিচতলার ওই কক্ষটি অন্ধকার হওয়ায় আজকের জন্য অভিযান বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। আগামীকাল আবারও বাড়িটিতে তল্লাশি চালানো হবে। তিনি বলেন, বিকাল সাড়ে পাঁচটার দিকে কুমিল্লা পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে (এসপি) অভিযানের বিষয়ে বিস্তারিত জানানো হবে।

কুমিল্লা মহানগরীর সদর দক্ষিণ উপজেলার ২৪ নং ওয়ার্ডের কোটবাড়ি এলাকায় গন্ধমতি গ্রামে জঙ্গি আস্তানায় ‘অপারেশন স্ট্রাইক আউট’ শুরু হয় বেলা সোয়া ১১টায়। বিকালের দিকে সোয়াট বাহিনী ভেতরে ঢোকার পর সেখানে কাউকে দেখতে পায়নি।

বিকাল পৌনে পাঁচটার দিকে শফিকুল ইসলাম বলেন, ওই বাড়িতে দুইজন থাকতেন। ঘেরাওয়ের সময় তাদের মধ্যে একজন ছিলেন বলে বাড়িওয়ালার মাধ্যমে তারা জানতে পেরেছিলেন। এছাড়া আস্তানাটিতে দুটি সুইসাইডাল ভেস্ট ও ছয়টি বোমা থাকার খবর ছিল। সুইসাইডাল ভেস্ট দুটি জঙ্গিরা নিয়ে গেছে কি না, তা এখনো নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

গোপন সূত্রে খবর পেয়ে বুধবার বিকালে কোটবাড়ি সংলগ্ন দক্ষিণ বাগমারার দেলোয়ার হোসেনের বাড়িটি ঘিরে ফেলে পুলিশ। বাহিনীটির বোমা নিষ্ক্রিয়কারী দল, বিশেষায়িত ইউনিট সোয়াট, জঙ্গিবিরোধী বিশেষ শাখা কাউন্টার টেররিজম ইউনিট, র‌্যাব ও জেলা পুলিশের সদস্যরা বাড়ির পাশে অবস্থান নেয়। কুমিল্লা সিটি করপোরেশন নির্বাচন হওয়ায় গতকাল বাড়িটিতে অভিযান না চালিয়ে ঘেরাও করে রাখে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যরা।

রাতভর ঘিরে রাখার পর শুক্রবার সকালে অভিযান শুরু করে সোয়াট সদস্যরা। এজন্য ওই এলাকার বিদ্যুৎ ও গ্যাস সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেয়া হয়। এছাড়া নিরাপত্তার স্বার্থে ঘটনাস্থলের দুই কিলোমিটার এলাকায় জনসাধারণের চলাচল বন্ধ করে দেয়া হয়। স্থানীয় বাসিন্দাদের নিরাপদে অবস্থান করতে সকাল থেকে পুরো এলাকায় মাইকিং করা হয়।

‘অপারেশন স্ট্রাইক আউট’ চলার সময় দুপুর সাড়ে ১২টার একটু পর দুই দফায় একটানা গুলির শব্দ শোনা যায় বলে প্রত্যক্ষদর্শী অনেকে জানান। এরপর থেকে আর কোনো শব্দ পাওয়া যায়নি।  বিকালে জিআইজি শফিকুল ইসলাম বাড়িটিতে কোনো জঙ্গি নেই বলে ঢাকাটাইমসকে জানান।

ঢাকাটাইমস/৩১মার্চ/প্রতিনিধি/এমআর

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত