ভাড়ার চার্ট দেখতে চাওয়ায় গণমাধ্যমকর্মীকে পিটুনি

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৭ এপ্রিল ২০১৭, ১৮:৫৮

সিটিং বাস লোকাল হয়েছে ঘোষণা দিয়ে। কিন্তু কমেনি অতিরিক্ত ভাড়া। এ নিয়ে বিতর্ক, ঝগড়া, হাতাহাতি গত দুই দিনে রাজধানীর বাসে সাধারণ চিত্র হয়ে উঠেছে। এর মধ্যে একটি বাসে অতিরিক্ত ভাড়া নেয়ার প্রতিবাদ করায় এক গণমাধ্যম কর্মীকে পিটুনির অভিযোগ উঠেছে।

ভুক্তভোগী গণমাধ্যম কর্মীর নাম আতিক রহমান। তিনি বেসরকারি টেলিভিশন ৭১ টিভির প্রযোজক ও সংবাদ পাঠক হিসেবে কাজ করেন। হামলায় আহত আতিককে এলাকাবাসী ও বাসের যাত্রীদের সহযোগিতায় হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়।

একাত্তর টিভির সংবাদকর্মী ফাল্গুনী রাশিদ ঢাকাটাইমসকে জানান, সোমবার দুপুরের দিকে আতিক রহমান গুলশান-২ থেকে মিরপুর যাচ্ছিলেন। তিনি ওই রুটে চলা ‘জাবালে নূর’ নামে একটি বাসে উঠেন। এই বাসটি সিটিং হিসেবে চলতো আগে। এখন লোকাল হওয়ার পরও শ্রমিকরা আগের হারেই ভাড়া চান। এ নিয়ে বাকবিতণ্ডার এক পর্যায়ে আতিককে মারধর করে বাসটির শ্রমিকরা। এতে তার নাক ফেটে যায়।

ফাল্গুনী রাশিদ জানান, মিরপুর থানায় জাবালে নূর পরিহনের কর্মীদের বিরুদ্ধে মামলা করবেন আতিক রহমান। তিনি জানান, হাসপাতালে চিকিৎসার পর আতিকের অবস্থা এখন ভালোর দিকে।

আতিক রহমান গণমাধ্যমকর্মীদের বলেন, ‘আমি বিআরটিএ’র ভাড়ার চার্ট দেখতে চাওয়ায় আমার উপর চটে যায় হেলপার। বলে চার্ট দেখে কি করবেন? চার্ট ধুয়ে কি পানি খাবেন?’। তিনি বলেন, প্রতুত্তরে আমি বলি, ‘বেআদবি করবেন না, চার্ট অনুযায়ী ভাড়া দেব। এ নিয়ে বাকবিতণ্ডার একপর্যায়ে আমাকে কিল ঘুষি মারা শুরু করে। এতে আমি বাসের ভেতরে পড়ে যাই, আমার নাক ফেটে রক্ত পড়া শুরু হয়।’

একাত্তর টেলিভিশনের প্রতিবেদক জেমসন মাহবুব বলেন, ‘আমরা এখন আতিক ভাইয়ের চিকিৎসার বিষয়টিতে বেশি গুরুত্ব দিচ্ছি। এরপর তিনি যেভাবে সিদ্ধান্ত নেবেন সেভাবেই আইনি ব্যবস্থা নেব।’

জানতে চাইলে মিরপুর থানার ডিউটি অফিসার আলাউদ্দিন ঢাকাটাইমসকে বলেন, ‘ওই সাংবাদিক এসেছিলেন, চিকিৎসার জন্য বাইরে গেছেন, এখনও আসেননি। তবে উনি এসে মামলা করবেন বলে গেছেন। মামলা হলে আমরা ব্যবস্থা নেব।’

(ঢাকাটাইমস/১৭এপ্রিল/জিএম/ডব্লিউবি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

জাতীয় বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত