রসগোল্লার জন্য বিয়ে ভাঙলেন কনে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২০ এপ্রিল ২০১৭, ১৩:০৯ | প্রকাশিত : ২০ এপ্রিল ২০১৭, ১২:০৩

বিয়ে অনেক কারণেই ভেঙে যেতে শোনা যায়। কখনও পণের দাবিতে, কখনও বা খাবারে টান। তবে এই হয়তো প্রথমবার কেবল রসগোল্লা নিয়ে বিবাদের জেরে বিয়ে ভেঙে গেল।

ঘটনাটি ঘটেছে ভারতের উত্তরপ্রদেশের উন্নাও জেলার কুরমাপুর গ্রামে। লখনৌ থেকে ৭০ কিলোমিটার দূরের গ্রামটিতে বরযাত্রীদের পৌঁছতে একটু দেরি হয়ে যায়। তাই পাত্রের বাবা তাড়াতাড়ি খাবারের বন্দোবস্ত করতে বলেন মেয়ের বাবাকে। নিমন্ত্রিতদের জন্য একটা করে রসগোল্লা বরাদ্দ করেছিলেন মেয়ের বাবা। কিন্তু পাত্রের ভাই মনে হয় একটু বেশিই ক্ষুধার্থ ছিলেন, পাতে দুটো রসগোল্লা তুলে নেন। আর তাতেই বচসার সূত্রপাত।

মেয়ের আত্মীয়দের সঙ্গে তখনই কথা কাটাকাটি শুরু হয়ে যায় পাত্রের ভাইয়ের। পরিস্থিতি যাতে নাগালের বাইরে না চলে যায় সেজন্য, বরযাত্রীদের বিষয়টি জানান পাত্রের ভাই। তখনই বরযাত্রীদের মধ্যে বেশ কয়েকজন এসে মেয়ের বাবাকে রীতিমতো মারধর করতে শুরু করে দেন। দুই পক্ষের মধ্যে খাবারের প্লেট, চামচ এমনকী খাবারদাবার অবধি ছোড়াছুড়ি শুরু হয়ে যায়। বিয়েবাড়ির প্যান্ডেল ভেঙে পড়ে। বারান্দা থেকে বাবাকে এই ভাবে মার খেতে বিয়েই ভেঙে দেয় মেয়ে।

পুলিশ এবং গ্রামের বাকি লোকজনেরা বিষয়টি নিজেদের মধ্যে মিটমাট করে নিতে বলেন। যদিও অছলগঞ্জ থানার পুলিশের এককর্তা জানিয়েছেন, মেয়ের বাবা থানায় অভিযোগ দায়ের করেছেন।

দিনকয়েক আগেই ব্যাঙ্গালুরুতেও এক পাত্রপক্ষ বিয়ে ভেঙে দিয়েছিল। কারণ মেয়ের বাড়িতে খাবারে টান পড়েছিল। পাত্রপক্ষকে কিছুক্ষণ অপেক্ষা করতে বলা হলে পাত্রপক্ষ রাজি হয়। কিন্তু তড়িঘড়ি গাড়িতে চেপে বিয়েবাড়ি ছেড়ে চলে যান পাত্র। এর কিছুক্ষণ পর পাত্রপক্ষ জানান, তারা বিয়ের জন্য প্রস্তুত। যদিও ততক্ষণে বেঁকে বসেছে কনে।

(ঢাকাটাইমস/২০এপ্রিল/জেএস)

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত