এবার বড় আকারে ব্র্যাক ব্যাংকের শিশু দিবাযত্ন কেন্দ্র

অর্থনীতি প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২১ এপ্রিল ২০১৭, ০৮:৫৮

ঢাকার তেজগাঁওয়ে প্রধান কার্যালয়ে বড় পরিসরে স্থানান্তরিত শিশু দিবাযত্ন কেন্দ্র (ডে কেয়ার সেন্টার) "ক্রেইশ" চালু করেছে ব্র্যাক ব্যাংক লিমিটেড। ১৭ এপ্রিল ২০১৭ ব্র্যাক এন্টারপ্রাইজেস এর সিনিয়র ডিরেক্টর তামারা হাসান আবেদ আনুষ্ঠানিকভাবে এই ডে কেয়ার সেন্টার উদ্বোধন করেন।

এই অনুষ্ঠানে ব্র্যাক ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সেলিম আর. এফ. হোসেন, মানবসম্পদ বিভাগের প্রধান বিলকিস জাহান, কমিউনিকেশন্স বিভাগের প্রধান জারা জাবীন মাহবুব, ব্র্যাক ব্যাংকের নারী ফোরাম ‘তারা’ এর চেয়ারপারসন নুরুন নাহার বেগম উপস্থিত ছিলেন।

ব্র্যাক ব্যাংকের নারী ফোরাম ‘তারা’ এর উদ্যোগে এই ডে কেয়ার সেন্টার প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে। উল্লেখ্য, ২০১১ সাল থেকে ব্র্যাক ব্যাংক কর্মকর্তাদের জন্য ডে কেয়ার সুবিধা প্রদান করছে। 

ব্র্যাক ব্যাংক দেশের অন্যতম দ্রুত বর্ধনশীল একটি ব্যাংক। বর্তমানে ১৮১টি শাখা, ৪৬০টি এ.টি.এম., ৪৪৮টি এস.এম.ই. ইউনিট অফিস এবং ৬,৫০০ জনেরও বেশি জনবল নিয়ে এই ব্যাংকের নেটওয়ার্ক বিস্তৃত রয়েছে। ব্র্যাক ব্যাংক এখন আর্থিক খাতের সব ধরনের সেবাই প্রদান করে থাকে। বর্তমানে এ ব্যাংকের ১.৫ মিলিয়ন বা ১৫ লাখেরও বেশি গ্রাহক রয়েছে।

বাংলাদেশে মাত্র ১৫ বছরের কার্যক্রমের মাধ্যমে ব্র্যাক ব্যাংক দেশের সর্ববৃহৎ এস.এম.ই. অর্থায়নকারী প্রতিষ্ঠান হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করেছে। ব্র্যাক ব্যাংক এখন রিটেইল, করপোরেট, এস.এম.ই, প্রবাসীসহ ব্যাংকিং-এর অন্যান্য ক্ষেত্রেও তার সেবা কার্যক্রম অব্যাহত রেখে চলেছে। ২০১৩ সালে ‘দ্যা এশিয়ান ব্যাংকার’ থেকে আন্তর্জাতিকভাবে মর্যাদাপূর্ণ ‘বেস্ট ম্যানেজড ব্যাংক ইন বাংলাদেশ এওয়ার্ড’ লাভ করেছে ব্র্যাক ব্যাংক।

২০১০ সালে, ব্র্যাক ব্যাংক ফিন্যান্সিয়াল টাইম্স ও আই.এফ.সি. কর্তৃক এশিয়ার বিকাশমান বাজারগুলোর মধ্যে সবচেয়ে টেকসই ব্যাংক হিসেবে স্বীকৃতি পেয়েছে। ব্র্যাক ব্যাংক হচ্ছে বাংলাদেশের প্রথম ব্যাংক যেটি বিশ্বের সবচেয়ে টেকসই ব্যাংকসমূহের একটি আন্তর্জাতিক নেটওয়ার্ক বা জোট দ্য গ্লোবাল অ্যালায়েন্স ফর ব্যাংকিং অন ভ্যালুজ (জি.এ.বি.ভি.)-এর একটি প্রতিষ্ঠাতা সদস্য।

ঢাকাটাইমস/২১এপ্রিল/টিএমএইচ

সংবাদটি শেয়ার করুন

অর্থনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত