যুদ্ধাপরাধ মামলায় খুলনার ৯ আসামি গ্রেপ্তার

ব্যুরো প্রধান, খুলনা
 | প্রকাশিত : ২১ এপ্রিল ২০১৭, ১২:৩৭

একাত্তরের যুদ্ধাপরাধ মামলায় নয়জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার রাত থেকে শুক্রবার সকাল পর্যন্ত খুলনার ডুমুরিয়া উপজেলা ও ঢাকা থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়। এদের মধ্যে ডুমুরিয়া থেকে সাতজন এবং ঢাকা থেকে দুইজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

ডুমুরিয়া থেকে গ্রেপ্তাররা হলেন- আব্দুর রহিম (৬৮), শামসুর রহমান (৭৫), জাহান আলী বিশ্বাস (৬৭), মো. শাজাহান (৬৮), করিম শেখ (৬৮), আবু বকর (৬৭) এবং রওশন আলী গাজি (৭২)। তাদের সবার বাড়ি ডুমুরিয়া উপজেলার বিভিন্ন গ্রামে।

ঢাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে নাজের আলী ফকির ও সোহরাব হোসেন সরদারকে।

মামলার আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের তদন্ত কর্মকর্তা হেলাল উদ্দিন বলেন, গ্রেপ্তার আসামিরা ১৯৭১ সালের ১৮ মে ডুমুরিয়া উপজেলার খর্নিয়া গ্রাম থেকে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষে থাকা আনু মোল্লা ওরফে আজিজ শেখ, মজিদ বিশ্বাস, সাহেব আলী, শামসুল মোল্লা, ইমাম শেখ, আমজাদ সরদার, আব্দুল লতিফ মোড়ল ও কাওসার শেখসহ নয়জনকে ধরে নিয়ে যায়। পরে রানাই এলাকার বকুলতলায় গুলি করে হত্যার পর লাশগুলো নদীতে ফেলে দেয়।

ওই ঘটনায় খর্নিয়া গ্রামের লিয়াকত আলী গাজী বাদী হয়ে ডুমুরিয়া থানায় একটি মামলা করেন। মামলায় মোট ১১জনকে আসামি করা হয়েছে। প্রথমিক তদন্তে তাদের বিরুদ্ধে ঘটনার সত্যতা মিলেছে।

তদন্ত কর্মকর্তা আরও বলেন, হত্যা মামলার তদন্তকালে তাদের বিরুদ্ধে আরও চার থেকে পাঁচটি অভিযোগ পাওয়া গেছে। যা তদন্ত করা হচ্ছে।

খুলনা জেলা গোয়েন্দা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আক্কাস আলী বলেন, ১১ আসামির মধ্যে সাতজনকে গতকাল রাতে ডুমুরিয়ার খর্নিয়া, রানাই এবং মহানগরীর গল্লামারী এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। নাজের আলী ফকির ও সোহরাব হোসেন সরদারকে ঢাকায় গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

ঢাকাটাইমস/২১এপ্রিল/এএইচ/এমআর

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত