সূচক কমলেও লেনদেন বেড়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২৮ মে ২০১৭, ১০:২৮ | প্রকাশিত : ১৭ মে ২০১৭, ১৮:৪২

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) ও চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) বুধবার মূল্য সূচকের মিশ্র প্রবণতার মধ্য দিয়ে লেনদেন শেষ হয়েছে। সপ্তাহের চতুর্থ কার্যদিবস দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) সূচকের নিম্নমুখী প্রবণতায় লেনদেন শেষ হয়েছে। এর ফলে একদিন উত্থানের পর আবারও পতনে বিরাজ করছে বাজার। এদিন শুরুতে উত্থান থাকলেও প্রথম ঘণ্টার পর সেল প্রেসারে নামতে থাকে সূচক। শেষ দিকে ঘুড়ে দাঁড়ানোর চেষ্টা করলেও ব্যহত হয় বাজার। এদিন লেনদেন শেষে সূচকের পাশাপাশি কমেছে বেশিরভাগ কোম্পানির শেয়ার দর। আজ দুই বাজারেই লেনদেনে অংশ নেওয়া বেশিরভাগ কোম্পানির শেয়ার দর কমেছে।

বাজার বিশ্লেষণে দেখা গেছে, আজ ডিএসইতে ৬৮৪ কোটি চার লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে, যা গতকালের তুলনায় ১২০ কোটি ৯১ লাখ টাকা বেশি। গতকাল মঙ্গলবার ডিএসইতে ৫৬৩ কোটি ১৩ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছিল। আজ ডিএসইতে মোট লেনদেনে অংশ নেয় ৩২৭টি কোম্পানি ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১২০টির, কমেছে ১৫৫টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৫২টির শেয়ার দর।

এদিকে ডিএসইএক্স বা প্রধান মূল্য সূচক ছয় পয়েন্ট কমে পাঁচ হাজার ৪২৯ পয়েন্টে অবস্থান করছে। ডিএসইএস বা শরিয়াহ সূচক দশমিক ২১ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে এক হাজার ২৫৮ পয়েন্টে। আর ডিএস৩০ সূচক চার পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে দুই হাজার দুই পয়েন্টে।

আজ চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) ৪২ কোটি ৯৯ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। সিএসইর সার্বিক সূচক সিএএসপিআই ১৬ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে ১৬ হাজার ৮১০ পয়েন্টে। সিএসইতে মোট লেনদেন হয়েছে ২৪৬টি কোম্পানির শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড। এরমধ্যে দর বেড়েছে ৮৮টির, কমেছে ১৩১টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ২৭টি কোম্পানির শেয়ার।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে সবচেয়ে বেশি লেনদেন হয়েছে প্রকৌশল খাতে। মার্কেটে আজকে খুব একটা পরিবর্তন দেখা যায়নি। প্রায় অপরিবর্তিত থাকায়ে আগের দিনের তুলনায় ট্রেড ভলিউমে তেমন পার্থক্য দেখা যায়নি। একারণে বেশির ভাগ খাতে আগের দিনের তুলনায় লেনদেন একই হয়েছে। তবে তার মধ্যে সবচেয়ে বেশি লেনদেন হয়েছে প্রকৌশল খাতে। আগের দিনের তুলনায় এই খাতে ট্রেড বেড়েছে অনেক পরিমাণ। লেনদেনের ভিত্তিতে দেখলে আজকে দ্বিতীয় ও তৃতীয় অবস্থানে ছিল টেক্সটাইল খাত এবং জ্বালানি খাত। অন্যদিনের তুলনায় উভয় খাতেই লেনদেন বেশি হয়েছে। তুলনামূলকভাবে মার্কেটের বাকি খাতগুলোর চেয়ে বেশি লেনদেন হয়েছে উভয় খাতেই। পরিশেষে পাঁচ খাতে সেল প্রেসারে ব্যাংক, আর্থিক, জ্বালানি ও বিদ্যুৎ, বস্ত্র এবং বীমা খাতের অধিকাংশ কোম্পানির দর কমেছে।

(ঢাকাটাইমস/১৭মে/ইউএ/জেডএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

অর্থনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত