ঝড় দেখে লঞ্চ থেকে লাফ, ১০ দিন পর লাশ উদ্ধার

চাঁদপুর প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২৪ মে ২০১৭, ১৫:৫৫ | প্রকাশিত : ২৪ মে ২০১৭, ১৫:৫১

ঝড়ের সময় লঞ্চ থেকে নদীতে লাফিয়ে পড়ে নিখোঁজের ১০ দিন পর কলেজছাত্র মোজাম্মেল হোসেন বাবরের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গত ১৫মে রাত দুইটার দিকে চাঁদপুর হরিণা ফেরিঘাটে সুন্দরবন-৬ নামে যাত্রীবাহী একটি লঞ্চ থেকে লাফিয়ে পড়ার পর থেকে তিনি নিখোঁজ ছিলেন।

বুধবার সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে মেঘনা নদীর হরিনা-গোবিন্দিয়ার মধ্যস্থল নন্দিগো থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ।

সকালে নন্দিগো এলাকার মেঘনা নদীতে একটি মরদেহ ভাসতে দেখে স্থানীয় লোকজন পুলিশকে খবর দেয়। পরে তার বাবা মোজাম্মেল হোসেন ঘটনাস্থলে গিয়ে বাবরের মরদেহ চিহ্নিত করে।

বাবর চাঁদপুর শহরের বকুলতলা এলাকার রেল কর্মচারী তাফাজ্জল হোসেনের ছেলে। তিনি চাঁদপুর সরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র।

বাবরের বাবা তাফাজ্জল হোসেন জানান, গত ১৩ মে দিপু, শুভ, নাজমুল ও তানভিরের সঙ্গে চাঁদপুর থেকে ভ্রমণের জন্য কুয়াকাটার উদ্দেশে রওনা হয় বাবর। ১৫ মে রাত দুইটার দিকে কুয়াকাটা থেকে সুন্দরবন-৬ নামের লঞ্চটি হরিণা ফেরিঘাটে আসার পর ঝড়ের কবলে পড়ে। ওই সময় আতঙ্কিত হয়ে লঞ্চ থেকে লাফিয়ে পড়েন বাবর। পরদিন ভোরে তার অন্য সহপাঠিরা নিখোঁজের বিষয়টি তাদের অবহিত করেন।

চাঁদপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা অলিউল্ল্যাহ অলি বলেন, নিখোঁজের পরদিন নিখোঁজ বাবরের বাবা তাফাজ্জল হোসেন চাঁদপুর মডেল থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি করে। সে আলোকে আজ নিখোঁজ ছাত্রের মরদেহ নদীতে ভেসে উঠলে সেটি উদ্ধার করা হয়। ময়নাতদন্তের পর মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে বলে জানান তিনি।

ঢাকাটাইমস/২৪মে/প্রতিনিধি/এমআর

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত