বেড়াতে নিয়ে ধর্ষণের শিকার

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২৮ মে ২০১৭, ২২:৪৩
প্রতীকী ছবি

বেড়াতে নিয়ে যাবার কথা বলে পূর্ব পরিচয়ের সূত্র ধরে এক হিন্দু মেয়ে ধর্ষণের শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। শনিবার রাতে তাকে পাশের আটোয়ারী বড়দাপ এলাকায় এক নির্জন বাড়িতে নিয়ে সোহাগ নামে এক যুবক ধর্ষণ করে।

পুলিশ ও পারিবারিক সূত্র জানা গেছে, আটোয়ারী উপজেলার বড়দাপ গ্রামের সোহাগ নামে এক যুবক রুহিয়া মধুপুর গ্রামে  কিছুদিন আগে বিয়ে করে। বিয়ের পর শ্বশুর বাড়ি যাতায়াতের সুযোগে কুড়ালিপাড়া এলাকার এক হিন্দু মেয়ের সঙ্গে সখ্য গড়ে ওঠে। মোবাইলে কথা বলে তারা আরো ঘনিষ্ঠ হয়ে উঠে।

এদিকে গত শনিবার সন্ধ্যায় বেড়াতে নিয়ে যাওয়ার কথা বলে ওই যুবতীকে সোহাগ একটি মোটরসাইকেলে করে পঞ্চগড়ের আটোয়ারী উপজেলার বড়দাপ গ্রামে জনৈক আসমা নামে এক মহিলার বাড়িতে নিয়ে যায়। সেখানে সোহাগ তাকে একাধিকবার ধর্ষণ করে। পরে তাকে মোটরসাইকেলে করে রাত ১০টার দিকে আবার মধুপুর গ্রামে পৌঁছে দিতে আসে। এবার সে তার বন্ধু রিপনকে সঙ্গে নিয়ে আসে। তিন জন মিলে এক মোটরসাইকেলে  ফিরলে এলাকার লোকজন তাদের চ্যালেঞ্জ করে। তাৎক্ষণিকভাবে এলাকাবাসী সোহাগের বন্ধু রিপনকে আটক করে থানায় সোপর্দ করে।

এ ঘটনায় ধর্ষিত নিজেই বাদী হয়ে রবিবার মামলা করেছেন।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা উপ-পরিদর্শক রেজা হোসেন জানান, আটক রিপনকে গ্রেপ্তার দেখিয়ে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

সেই সাথে ধর্ষিতার ডাক্তারি পরীক্ষা ঠাকুরগাঁও আধুনিক হাসপাতালে সম্পন্ন হয়েছে।

(ঢাকাটাইমস/২৮মে/প্রতিনিধি/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত