‘তামিমকে দেখে মনে হয় গাঙ্গুলি ব্যাট করছে’

দেলোয়ার হোসেন, লন্ডন, ইংল্যান্ড থেকে
| আপডেট : ১৭ জুন ২০১৭, ২০:৪১ | প্রকাশিত : ১৭ জুন ২০১৭, ১৬:৪২

সেমিফাইনালে ভারতের কাছে জঘন্যভাবে দল হারলেও তামিম হারেননি। ইংল্যান্ডে ‘নাম’ কামিয়ে দেশে ফিরেছেন তামিম। চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির চার ইনিংসের একটিতে কেবল রান পাননি। বাকি তিন ম্যাচেই বড় ইনিংস। ১২৮, ৯৫ ও ৭০। ৭৩.২৫ গড়ে রান করেছেন ২৯৩। টুর্নামেন্টের তৃতীয় সর্বাধিক রান সংগ্রহকারী ব্যাটসম্যান তিনি। এই তামিমে মু্গ্ধ ইংল্যান্ড এবং ক্রিকেট দুনিয়া। ইংল্যান্ডে বসেই প্রস্তাব পেয়েছেন কাউন্টি খেলার।

তামিমের ব্যাটিং স্টাইলে মুগ্ধ ক্যারিবিয়ান সাবেক ফাস্ট বোলার এবং বর্তমান ক্রিকেট ধারাভাষ্যকার ইয়ান বিশপ। বাংলাদেশের ইনিংসের পর তার সঙ্গে কিছু কথা হয় বাংলাদেশ ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ ক্রিকেট নিয়ে। তিনি জানান, তামিম ইকবালের ব্যাটিং স্টাইল তার খুব পছন্দ। তামিমের ব্যাটিং দেখে নাকি তার সৌরভ গাঙ্গুলির কথা মনে পড়ে।

ঢাকাটাইমসকে বিশপ বলেন, ‘তামিম একজন অসাধারণ স্ট্রোক মেকার খেলোয়াড়। ওর মধ্যে ধৈর্য্য আছে। আছে সাহস। সময়ের সঙ্গে সঙ্গে নিজেকে পরিপূর্ণ করে তুলেছে। একজন বড় ব্যাটসম্যানের মধ্যে যে গুণগুলো থাকা দরকার তার সবই আছে ওর মধ্যে। বড় ইনিংস খেলার চমৎকার যোগ্যতা আছে ওর। তামিমের ব্যাটিং স্টাইল আমার খুব পছন্দ। মনে হয় সৌরভ গাঙ্গুলি ব্যাট করছে। দুজনই স্ট্রোক মেকার ব্যাটসম্যান। খেলার ধরনও অনেকটা এক।’

তামিম তার কাছে বিশেষ। জানালেন, পুরো বাংলাদেশ দলটাকেই তার ভালো লাগে। বিশপ বললেন, ‘তামিম ছাড়াও তোমাদের দলে বেশ কয়েকজন আন্তর্জাতিক মানের খেলোয়াড় আছে। যারা ম্যাচ উইনার হিসেবে রোল প্লে করার মতো। যেমন মুশফিক, সাকিব, মাহমুদউল্লাহ। নিউজিল্যান্ডের সঙ্গে যে পরিস্থিতিতে ম্যাচ জিতলো, তা ছিল অবিশ্বাস্য। ওটা ছিল আামার দেখা অন্যতম সেরা জয়।’

বাংলাদেশ দলের বোলিং নিয়ে বিশপ বলেন, ‘সম্ভবনাময় বোলিং। ওখানে কোর্টনি কাজ করছেন। তিনি লিজেন্ড। বাংলাদেশ দলের বড় পাওয়া যে, তার মতো একজন ফাস্ট বোলার দলের সঙ্গে কাজ করছেন। মোস্তাফিজ, তাসকিনরা অনেক লাভবান হবে তার কাছ থেকে। সত্যি কথা বলতে, বাংলাদেশের বোলিং এই টুর্নামেন্টে আমার কাছে একটু সাদামাটাই মনে হয়েছে। এটা হতে পারে কন্ডিশনের কারণে।’

অধিনায়ক মাশরাফিকে নিয়ে ইয়ান বিশপের মূল্যায়ন, ‘ও, মাশরাফি! সে তো অসাধারণ একজন লিডার। দলকে গত দুই বছরে সে অনেক দূরে নিয়ে গেছে। সে জানে দলকে কীভাবে এক সুঁতোয় গাঁথতে হয়। নিজের বোলিংও ধরে রেখেছে। মাঠে দলকে ভালো নেতৃত্ব দিতে জানে। ব্যাট হাতে রানও করতে পারে। তাকে তো আমি অলরাউন্ডার বলব।’

ওয়েস্ট ইন্ডিজের ক্রিকেটে সুসংবাদ আসছে না কেন? ক্যারিবিয়ান ক্রিকেট বোর্ড কতটা ইতিবাচক ভূমিকা পালন করছে? বিশপ বলেন, ‘ক্যারিবিয়ান ক্রিকেটে গত কয়েক বছরে কিন্তু অনেক ট্যালেন্ট এসেছে। আমার মনে হয় সঠিকভাবে দল নির্বাচন করা হলে ওয়েস্ট ইন্ডিজ চমৎকার একটা দল হবে। কিন্তু ওখানে কারও সঙ্গে কারোর মত মিলছে না। বোর্ডের সঙ্গে খেলোয়াড়দের সখ্যতা নেই। জাতীয় দল ছেড়ে ক্রিকেটাররা অন্যত্র খেলে বেড়াচ্ছে। খুবই দুঃখজনক। এগুলোই শেষ করে দিচ্ছে ক্যারিবিয়ান ক্রিকেটকে।’

(ঢাকাটাইমস/১৭ জুন/ডিএইচ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

খেলাধুলা বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত