যৌতুকের টাকা না পাওয়ায় গৃহবধূকে হত্যার অভিযোগ

রূপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ) প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৮ জুন ২০১৭, ২১:১০

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে দাবিকৃত যৌতুকের টাকা না পেয়ে স্বামীসহ শ্বশুর বাড়ির লোকজন সুমি আক্তার নামে এক গৃহবধূকে শ্বাসরোধে হত্যা করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনা স্বামী জুয়েল মিয়াকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। শনিবার রাত ১০টার দিকে উপজেলার কায়েতপাড়া ইউনিয়নের ইছাখালী এলাকায় ঘটে এ ঘটনা।

গৃহবধূ সুমি আক্তার উপজেলার নগড়পাড়া এলাকার সিরাজ ভুইয়ার মেয়ে।

সুমি আক্তারের পিতা সিরাজ ভুইয়া জানান, তিনি একজন মাটি কাটার শ্রমিক। অতি কষ্টে স্থানীয় একটি মাদ্রাসায় মেয়ে সুমি আক্তারকে লেখাপড়া করিয়েছেন। গত ১১ মাস আগে পাশের ইছাখালী এলাকার মারফত আলীর ছেলে জুয়েল মিয়া অপহরণ করে নিয়ে সুমি আক্তারকে বিয়ে করে। এছাড়া জুয়েল একজন মাদকাসক্ত। বিয়ের পর থেকেই যৌতুক হিসেবে সিরাজ ভুইয়ার কাছে একটি মোটরসাইকেল দাবি করে আসছিল জুয়েল। এছাড়া কয়েক দফায় প্রায় এক লাখ টাকাও নিয়ে নেয়। ইদানিং আরো এক লাখ টাকা যৌতুক ও সুজকি কোম্পানির একটি মোটরসাইকেলের জন্য চাপ দিয়ে আসছিল জুয়েলসহ শ্বশুর বাড়ির লোকজন। দাবিকৃত যৌতুকের টাকা ও মোটরসাইকেল না দিতে পারায় সুমি আক্তারকে শারীরিক নির্যাতন করত। শনিবার রাতে স্বামী জুয়েল মিয়া, শ্বশুর মারফত আলী, শাশুড়ি মিনারা, ভাসুর সোহেলসহ শ্বশুর বাড়ির লোকজন শ্বাসরোধে হত্যার পর সুমি আক্তারকে ফাঁস দিয়ে ঝুলিয়ে রাখে বলে বাবা সিরাজ ভুইয়াসহ পরিবারের সদস্যরা দাবি করেন। তারা হত্যাকারীদের ফাঁসির দাবি জানান।

সুমি আক্তারের মা খাদিজা বেগম অভিযোগ করে জানান, মেয়ের সুখের চিন্তা করে মাদকাসক্ত জামাই জুয়েলসহ শ্বশুর বাড়ির লোকজন যখন যা চেয়েছে, সাধ্যমত দেয়ার চেষ্টা করেছি। এছাড়া জোরপূর্বক বিয়ে করার কারণে শ্বশুর-শাশুড়িসহ ওই বাড়ির লোকজন পছন্দ করত না। সুমিকে জামাই জুয়েলসহ শ্বশুর বাড়ির লোকজন পরিকল্পিতভাবে হত্যা করেছে। তিনি মেয়ের হত্যাকারীদের ফাঁসির দাবি জানিয়েছেন প্রশাসনের কাছে।

এ বিষয়ে রূপগঞ্জ থানার উপ-পরিদর্শক রুবেল জানান, ইছাখালী এলাকায় শ্বশুর বাড়িতে গৃহবধূ সুমি আক্তারের লাশ পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়রা পুলিশে খবর দেয়। পরে পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে নারায়ণগঞ্জ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠায়। তবে, এটি হত্যা না আত্মহত্যা এখন বলা যাচ্ছে না।  ময়নাতদন্তের প্রতিবেদন পেলে প্রকৃত ঘটনা বলা যাবে।

রূপগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ইসমাইল হোসেন বলেন, এ ঘটনায় নিহত সুমি আক্তারের পিতা সিরাজ ভুইয়া বাদী হয়ে একটি হত্যা মামলা করেছেন। অভিযুক্ত জুয়েল মিয়াকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। বাকিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

(ঢাকাটাইমস/১৮জুন/প্রতিনিধি/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত