গাজীপুরে স্কুল ছাত্রসহ দুই খুন

গাজীপুর প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৮ আগস্ট ২০১৭, ০৯:৪৩

গাজীপুরের কোনাবাড়ি ও শ্রীপুরে পৃথক ঘটনায় এক স্কুলছাত্রসহ দুজনকে হত্যা করা হয়েছে। নিহতদের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠিয়েছে পুলিশ।

নিহতরা হলেন শ্রীপুরের কাওরাইদ এলাকার মাছ ব্যবসায়ী আরিফুল ইসলাম ও কোনাবড়ির জরুন এলাকার পঞ্চম শ্রেণির ছাত্র মো. মাজেদুল।

শ্রীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আসাদুজ্জামান জানান, ফুটবল খেলা নিয়ে বিরোধকে কেন্দ্র করে বৃহস্পতিবার রাতে শ্রীপুর উপজেলার কাওরাইদ রেলস্টেশন এলাকায় আব্দুল মিয়ার ছেলে নয়ন মিয়া ও তার সহযোগীরা লাঠি, হকিস্টিক ও রড দিয়ে মাছ ব্যবসায়ী আরিফুলকে আঘাত করে পালিয়ে যায়। গুরুতর অবস্থায় উদ্ধার করে তাকে বরমী পপুলার ক্লিনিকে ভর্তি করা হয়। সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়ার পর শ্রীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

ওসি আনও জানান, স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সেই নিহতের সুরতহাল করা হয়েছে। তার মাথায় আঘাত ও ঘাড় ভাঙা পাওয়া গেছে।

এদিকে সন্ধ্যায় কোনাবাড়ির জরুন এলাকায় খালাতো ভাইয়ের হাতে খুন হন পঞ্চম শ্রেণির ছাত্র মাজেদুল।

কোনাবাড়ী পুলিশ ফাঁড়ির সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) আকরাম হোসেন জানান, জামালপুরের রামনগর গ্রামের সুজন মিয়া তার ছেলে মাজেদুলকে সঙ্গে নিয়ে জরুন এলাকায় জুলহাসের বাড়িতে ভাড়া থাকতেন। সুজন ও তার স্ত্রী স্থানীয় পোশাক কারখানায় চাকরি করেন আর মাজেদুল একটি স্কুলে পঞ্চম শ্রেণিতে লেখাপড়া করতো। একই এলাকার পাশের বাসায় মাজেদুলের খালাত ভাই নূরনবী বাবা-মার সঙ্গে থাকে।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় খালাতো ভাই মাজেদুলকে নিজেদের বাসায় ডেকে নেন নূরনবী। পৌনে সাতটার দিকে বাড়ির অন্য ভাড়াটেরা নূরনবীর ঘরে মাজেদুলের গলায় ওড়না বাঁধা লাশ দেখে পুলিশ ও তার বাবা-মাকে খবর দেয়।

খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজের মর্গে পাঠায়। ঘটনার পর থেকে নূরনবী পলাতক রয়েছে।

ঢাকাটাইমস/১৮আগস্ট/প্রতিনিধি/এমআর

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত