রায়ে প্রতিক্রিয়া দেখানো অন্যায় নয়: আইনমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ১৮ আগস্ট ২০১৭, ১৬:০১ | প্রকাশিত : ১৮ আগস্ট ২০১৭, ১৪:১৪

সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনীর রায়ের সমালোচনা করা যাবে জানিয়ে আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেছেন, যতক্ষণ না আদালত অবমাননা না হয় ততক্ষণ প্রতিক্রিয়া দেখানো অন্যায় নয়।

শুক্রবার দুপুরে রাজধানীর তেজগাঁওয়ে সরকারি শিশু পরিবারের দুস্থ ও অসহায় শিশুদের মধ্যে খাবার বিতরণের অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের কাছে এসব কথা বলেন আইনমন্ত্রী। জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে শিশু পরিবারের ১৮০ টি দুঃস্থ শিশুর মধ্যে খাবার বিতরণের ব্যবস্থা করে আইন ও বিচার বিষয়ক মন্ত্রণালয়।

এই আয়োজন শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন আইনমন্ত্রী। এ সময় ষোড়শ সংশোধনী অবৈধ ঘোষণার রায় প্রকাশের পর সরকারি দল আওয়ামী লীগের প্রতিক্রিয়া নিয়ে তার কাছে জানতে চান গণমাধ্যমকর্মীরা।

গত ৩ জুলাই ষোড়শ সংশোধনী অবৈধ ঘোষণা করে রায় দেয় সুপ্রিম কোর্ট। ১ আগস্ট প্রকাশ হয় পূর্ণাঙ্গ রায়। এই রায়ে বিচারক অপসারণ সংক্রান্ত সংবিধানের ৯৬ অনুচ্ছেদ ছাড়াও শাসন ব্যবস্থা, সংসদসহ নানা বিষয় নিয়ে মন্তব্য করা হয়।

রায়ে সংসদ ছাড়াও বঙ্গবন্ধুর অবমাননার অভিযোগ এতে তীব্র প্রতিক্রিওয়া জানিয়েছে সরকারি দল। আর প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার সঙ্গে বৈঠক করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। পরে তিনি বৈঠক করেন রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদের সঙ্গে। এরপর রাষ্ট্রপতির সঙ্গে বৈঠক করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এই বৈঠকে আইনমন্ত্রী এবং অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলমও উপস্থিত ছিলেন।

আওয়ামী লীগ নেতাদের প্রতিক্রিয়া আর এসব কর্মকাণ্ডের সমালোচনা করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেছেন, রায়ের প্রতিক্রিয়ায় এসব তৎপরতা রাষ্ট্রদ্রোহের শামিল এবং ‘এ জন্য ভবিষ্যতে তাদের জনগণের কাঠগড়ায় দাঁড়াতে হবে।’

 

এসব বিষয়ে জানতে চাইলে আইনমন্ত্রী সাংবাদিকদেরকে বলেন, ‘রায়ের মধ্যে অপ্রাসঙ্গিক, অপ্রয়োজনীয়, আপত্তিকর কথা যেগুলো এসেছে, সেগুলো সম্পর্কে প্রতিক্রিয়া দেখানো স্বাভাবিক, যতক্ষণ পর্যন্ত উগ্র প্রতিক্রিয়ায়, কোনো ভাষায় আদালত অবমাননা না হয়। প্রতিক্রিয়া দেখানো অন্যায় নয়।’

মন্ত্রী বলেন, ‘আমরা রায়ের সঙ্গে একমত পোষণ করি না। কিন্তু রায়কে শ্রদ্ধা করি।’

অন্য এক প্রশ্নের জবাবে আনিসুল হক বলেন, ‘সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী বাতিলের পূর্ণাঙ্গ রায়ের প্রত্যয়িত অনুলিপির জন্য দরখাস্ত করা হয়েছে। রায়টি পরীক্ষা করা হচ্ছে। পড়ে দেখা হচ্ছে। রায় পুনর্বিবেচনার (রিভিউ) আবেদনের জন্য সরকার তৈরি হচ্ছে।’

(ঢাকাটাইমস/১৮আগস্ট/এমএম/ডব্লিউবি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

জাতীয় বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত