মুসলিম বা খ্রিস্টান জঙ্গি বলে কিছু হয় না: দালাই লামা

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ১৯ অক্টোবর ২০১৭, ২২:৫৪ | প্রকাশিত : ১৯ অক্টোবর ২০১৭, ২২:৫০

তিব্বতের আধ্যাত্মিক নেতা দালাই লামা বলেছেন, মুসলিম বা খ্রিস্টান জঙ্গি বলে আসলে কিছু হয় না।  কেউ যখন সন্ত্রাসকে আঁকড়ে ধরে, তখন তার কোনো ধর্ম থাকে না। যখন কেউ সন্ত্রাসী হয়ে যায়, সেই মুহূর্ত থেকে সে মুসলিম, খ্রিস্টান বা অন্য যে ধর্মেরও হোক না কেন, তা থেকে বিচ্যুত হয়।

গতকাল বুধবার ভারতের মণিপুর রাজ্যের রাজধানী ইম্ফলে তিব্বতের আধ্যাত্মিক নেতা দালাই লামা এ কথা বলেন।

বিশ্বের যে প্রান্তেই সন্ত্রাস হামলা হয়, অধিকাংশ ক্ষেত্রে মুসলিম প্রমাণিত হয়। প্রমাণ না হলেও ইসলামিক স্টেট(আইএস)’র মতো জঙ্গি গোষ্ঠীগুলো সে দায় স্বীকার করে নেয়।কথিত জিহাদের নামে সন্ত্রাসিরা তাদের কাজকর্ম চালিয়ে যায়। ফলে জঙ্গি কার্যকলাপের সঙ্গে কোনও একটি ধর্মের যোগ অনিবার্য হয়ে পড়ে। ঘটনাচক্রে বারবার তার সঙ্গে নাম জড়িয়েছে ইসলামের। সে কারণেই মুসলিম সন্ত্রাস আলোচনার পৃথক একটি বিষয় হয়ে উঠেছে। কিন্তু এই প্রেক্ষিতেই ভিন্নমত পোষণ করলেন নোবেলজয়ী ধর্মগুরু দালাই লামা।

তার মত, যখনই কোনও ব্যক্তি সন্ত্রাসের সঙ্গে যুক্ত হচ্ছে, তখনই সে ধর্মচ্যুত হচ্ছে। তাই মুসলিম বা খ্রিস্টান জঙ্গি বলে কিছু হয় না। কারণ সন্ত্রাসীর কোনও ধর্ম হয় না। তার বক্তব্য, পৃথিবীর সমস্ত সমস্যার  মূলে আসলে মানুষই।

পাশাপাশি মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের ‘আমেরিকা ফার্স্ট’ নীতিরও সমালোচনা করেছেন তিনি। অহিংসার পুজারী এই ধর্মগুরুর মত, হিংসার মাধ্যমে কোনও সমস্যার সমাধান করা সম্ভব নয়। অহিংসাই সেই কারিগর হয়ে উঠতে পারে।

বিশ্বজুড়ে ধর্মীয় অসহিষ্ণুতার নিন্দা করেন দালাই লামা। তিনি মিয়ানমারে মুসলিম রোহিঙ্গাদের প্রতি সহিংসতাকে ‘দুর্ভাগ্যজনক’ বলে মন্তব্য করেন। তিব্বতের নির্বাসিত এই নেতা ১৯৫৯ সাল থেকে ভারতে আছেন।

সূত্র: সংবাদ প্রতিদিন ও এনডিটিভি

(ঢাকাটাইমস/১৯অক্টোবর/এসআই)

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত