যুক্তরাষ্ট্রের ভাড়াটে লোক দিয়ে নির্যাতন করা হচ্ছে সৌদি প্রিন্সদের

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২৪ নভেম্বর ২০১৭, ০৯:০৩ | প্রকাশিত : ২৪ নভেম্বর ২০১৭, ০৮:৫১

সৌদি আরবের আটক কোটিপতি প্রিন্সদের নির্যাতনের জন্য যুক্তরাষ্ট্র থেকে ভাড়া করে বিশেষজ্ঞ নিয়োগ দেয়া হয়েছে। ব্রিটিশ গণমাধ্যম ডেইলি মেইল এ খবর দিয়েছে।

সৌদি আরবের একটি সূত্রের বরাত দিয়ে ডেইলি মেইল এ জানায়, সৌদি আরবের ধনকুবের আল-ওয়ালিদ বিন তালালকে নির্যাতনের সময় পা ওপরের দিকে বেঁধে পেটানো হয়েছে। এ কাজ করেছে যুক্তরাষ্ট্র থেকে ভাড়া করা বেসরকারি নিরাপত্তা ঠিকাদাররা।

পত্রিকাটি বলছে, সৌদি প্রিন্সদের আটকের পর তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয় এবং এ কাজে নেতৃত্ব দিয়ছে মার্কিন ভাড়াটে লোকজন। আর এসব ভাড়াটে লোকজনকে সৌদি আরবে এনেছেন ৩২ বছর বয়সী যুবরাজ মুহাম্মাদ বিন সালমান। তিনি এখন সৌদি আরবের সবচেয়ে ক্ষমতাধর ব্যক্তি।

সৌদি সূত্রটি জানিয়েছে, ‘এসব ভাড়াটে ঠিকাদাররা আটক প্রিন্সদেরকে মারধর করছে, নির্যাতন চালাচ্ছে, থাপ্পড় দিচ্ছে, অপমানজনক কথাবার্তা বলছে। তারা এসব প্রিন্সদের শেষ করে দিতে চায়।’

ডেইলি মেইল বলছে, যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক কুখ্যাত সামরিক ঠিকাদার প্রতিষ্ঠান 'ব্ল্যাকওয়াটার' থেকে নির্যাতনকারীদেরকে ভাড়া করা হয়েছে। বর্তমানে ব্ল্যাকওয়াটারের নাম বদল করে 'একাডেমি' রাখা হয়েছে। তবে একাডেমি সৌদি আরবে লোক ভাড়া দেয়ার কথা অস্বীকার করেছে।

গত ৪ নভেম্বর সৌদি আরবের ১১ জন প্রিন্স এবং বর্তমান ও সাবেক ৩০ জন মন্ত্রীকে আটক করা হয়। এরমধ্যে ধনকুবের ওয়ালিদ বিন তালাল রয়েছেন। এরইমধ্যে আটক প্রিন্সদের কাছ থেকে যুবরাজ মুহাম্মাদ ১৯ হাজার ৪০০ কোটি ডলার জবরদখল করে নিয়েছেন।

সূত্র: পার্স টুডে

(ঢাকাটাইমস/২৪নভেম্বর/এসআই)

 

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত