ত্রিপুরায় বিজয় উৎসব পালনের উদ্যোগ বাংলাদেশ হাইকমিশনের

আখাউড়া (ব্রাহ্মণবাড়িয়া) প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১০ ডিসেম্বর ২০১৭, ১৯:৫৮

পূর্বোত্তর ভারতের ত্রিপুরায় উদযাপিত হবে মহান বিজয় দিবসের বিভিন্ন অনুষ্ঠান। ত্রিপুরায় নিযুক্ত বাংলাদেশ সহকারী হাইকমিশনের উদ্যোগে এ বিজয় উৎসব অনুষ্ঠিত হবে। ত্রিপুরার আগরতলায় অনুষ্ঠিতব্য বিজয় উৎসবে গান পরিবেশন করবেন বাংলাদেশের ব্যান্ড ‘বিজয়’। এছাড়া ১৬ ডিসেম্বর আসাম রাজ্যের রাজধানী গুয়াহাটিতে গান গাইবে বাংলাদেশের ব্যান্ড ‘গানপাগল’। বাংলাদেশ হাইকমিশন থেকেই অনুষ্ঠান দুটির আয়োজন করা হয়েছে।

একাত্তরে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসে ত্রিপুরা বাংলাদেশের পরীক্ষিত বন্ধু। ত্রিপুরার জনগণের সঙ্গে বাংলাদেশের আত্মার সম্পর্ক রয়েছে জানিয়ে ত্রিপুরায় নিযুক্ত বাংলাদেশ সহকারী হাইকমিশনার মুহাম্মদ সাখাওয়াত হোসেন ঢাকাটাইমসকে জানান, এবার ত্রিপুরায় ঘটা করে মহান বিজয় দিবস উদযাপন করা হবে।

আসছে ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবসের দিন ত্রিপুরা রাজ্যের বিলোনিয়ার রাজনগর ব্লকের চোত্তাখোলায় ‘ভারত-বাংলাদেশ মৈত্রী উদ্যান’ জনগণের জন্য উন্মুক্ত করে দেয়া হবে। তিনি বলেন, ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধে ত্রিপুরার সীমান্তবর্তী এই নৈস্বর্গিক পাহাড়ঘেরা স্থানটি হয়ে উঠেছিল মুক্তিবাহিনীর অলিখিত আশ্রয়স্থল। চোত্তাখোলার ওই উদ্যানে গড়ে উঠছে বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিজড়িত একাত্তরের বিভিন্ন ঘটনাবলী, মুক্তিযুদ্ধের সময় ত্রিপুরায় আগত শরণার্থী প্রভৃতি বিষয় ম্যুরালের মাধ্যমে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে।

উদ্যানটিতে মিউজিয়ামসহ গড়ে তোলা হয়েছে বাংলাদেশের ১৯৭১ গণহত্যা জাদুঘর মঞ্চ। মৈত্রী উদ্যানে স্থাপিত হয়েছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও সেই সময়কার ভারতের প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধীর দুটি পুর্ণবায়ব ভাস্কর্য। তাছাড়াও  মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিতে বিভিন্ন স্মারকও স্থাপিত হয়েছে এই উদ্যানে।

তিনি বলেন, বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসের স্মৃতিজড়িত এই মৈত্রী উদ্যান নিঃসন্দেহে ত্রিপুরার পর্যটনক্ষেত্রে একটি অন্যতম আকর্ষণের কেন্দ্র হয়ে উঠবে আগামী দিনে।

১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবসের দিন দুই ’দেশের মৈত্রী উদ্যানটি রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মানিক সরকার উদ্বোধন করবেন। মৈত্রী উদ্যানটি শুধু ভারত-বংলাদেশ নয়, বিশ্বের সব শান্তিকামী মানুষের অনুপ্রেরণার উৎস হয়ে উঠবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন।

ত্রিপুরা দূতাবাসের সহকারী হাইকমিশনার শাখাওয়াত হোসেন জানান, বিজয় দিবসের অনুষ্ঠানে আগরতলায় উপস্থিত থাকবেন বাংলাদেশের স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম। সপরিবারে তিনি আগের দিনই ত্রিপুরায় আসছেন।

(ঢাকাটাইমস/১০ডিসেম্বর/প্রতিনিধি/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত