বাগেরহাটে মহিলা ইউপি সদস্যকে কুপিয়ে জখম

বাগেরহাট প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২০ জানুয়ারি ২০১৮, ১৭:৩০

বাগেরহাটে সংরক্ষিত নারী আসনের ইউনিয়ন পরিষদ সদ্স্য দিলরুবা খানম ও তার স্বামী স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা শেখ দেলোয়ার হোসেনকে কুপিয়ে জখম করেছে প্রতিপক্ষ। শুক্রবার রাত সাড়ে নয়টার দিকে সদর উপজেলার সদুল্ল্যাপুর গ্রামে এ হামলার ঘটনা ঘটে।

হামলার প্রতিবাদে বাগেরহাট জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগ বিক্ষোভ মিছিল করে জড়িতদের গ্রেপ্তার দাবি জানিয়েছে।

হাসপাতালে চিকিৎসাধীন দিলরুবা খানম জানান, শুক্রবার রাতে স্থানীয় পোলেরহাট বাজার থেকে তিনি ও তার স্বামী বাড়ি ফিরছিলেন। পথে  সদুল্ল্যাপুর গ্রামে পৌঁছালে নির্বাচনে তার পরাজিত প্রতিপক্ষ খাদিজা বেগম, তার স্বামী ও ছেলে পথরোধ করেন। এসময় তারা তাদের চোখে টর্চ লাইট জ্বেলে রাখে। এতে তার স্বামী শেখ দেলোয়ার লাইট নেভাতে বললে তাদের সঙ্গে বাকবিতণ্ডা বাঁধে। এক পর্যায়ে তারা লোহার রড় ও ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাথাড়ি কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করে চলে যায়। তাদের চিৎকারে স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে বাগেরহাট সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন।

বাগেরহাট সদর হাসপাতালের চিকিৎসক মশিউর রহমান জানান, দিলরুবা খানম ও তার স্বামী দেলোয়ার হোসেনের মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন স্থানে ধারলো অস্ত্র ও লোহার রডের আঘাতের চি‎হ্ন রয়েছে। তাদের বেশ রক্তক্ষরণ হয়েছে। তাদের চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। বর্তমানে আহত দুইজনই আশঙ্কামুক্ত বলে তিনি জানান।

এ হামলার ঘটনায় হামলাকারীদের অবিলম্বে গ্রেপ্তারের দাবি জানিয়েছেন ষাটগম্বুজ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শেখ আকতারুজ্জামান বাচ্চু।

বিষয়টি জানতে হামলায় অভিযুক্ত খাদিজা বেগমের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করে তাকে পাওয়া যায়নি।

বাগেরহাট মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মাহাতাব উদ্দিন বলেন, নারী ইউনিয়ন পরিষদ সদস্য দিলরুবা খানম ও তার স্বামী সাবেক সেনা সদস্য শেখ দেলোয়ার হোসেনের উপর হামলায় জড়িতরা এলাকা ছেড়ে পালিয়ে গেছে। তাদের ধরতে পুলিশ চেষ্টা করছে। তবে থানায় এখনো  কোন মামলা হয়নি।

(ঢাকাটাইমস/২০জানুয়ারি/প্রতিনিধি/ওআর/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত