ঘুষসহ গ্রেপ্তার ওয়াকফ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২৩ জানুয়ারি ২০১৮, ০০:০৪

দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) ফাঁদে এক লাখ ২৯ হাজার টাকা ঘুষসহ গ্রেপ্তার হওয়া বাংলাদেশ ওয়াকফ প্রশাসকের কার্যালয়ের সহকারী প্রশাসক মোতাহার হোসেন খানের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র অনুমোদন দিয়েছে দুদক।

সোমবার দুদকের প্রধান কার্যালয়ে এক বৈঠকে এই অভিযোগপত্র অনুমোদন দেওয়া হয়। যে কোন দিন এই প্রতিবেদন আদালতে দাখিল করা হবে বলে জানিয়েছেন দুর্নীতি নির্মূলে সরকারি সংস্থাটির জনসংযোগ কর্মকর্তা প্রণব কুমার ভট্টাচার্য্য।

গত বছরের ৫ নভেম্বর আসামি মোতাহার হোসেনকে ৪ নং নিউ ইস্কাটন রোড বাংলাদেশ ওয়াকফ ওয়াকফ প্রশাসকের কার্যালয় ভবন থেকে ঘুষসহ গ্রেপ্তার করে দুদকের ঢাকা বিভাগীয় কার্যালয়ের পরিচালক নাসিম আনোয়ারের নেতৃত্বাধীন একটি দল। 

দুদকের সমন্বিত জেলা কার্যালয়, ঢাকা-১ এর উপ-সহকারী পরিচালক ও এই মামলার তদন্ত কর্মকর্তা হিসেবে দায়িত্ব পাওয়া নাজিম উদ্দীন ওইদিনই বাদী হয়ে রমনা থানায় মামলা করেন।

মোতাহরের বিরুদ্ধে ঢাকার কেরানীগঞ্জ উপজেলার বাঘৈর জামে মসজিদের মোতওয়াল্লী কমিটির সদস্য ফারুক হোসেন অভিযোগ জানিয়েছিলেন হটলাইন নম্বর ১০৬ এ। তিনি জানান, মোতাহার হোসেন খান তার কাজ করে দেওয়ার জন্য পাঁচ লাখ টাকা ঘুষ দাবি করছেন।

অভিযোগ পাওয়ার পর ওয়াকফ কার্যালয়ে দুদক টিম ওঁৎ পেতে থাকে। আর ৫০ হাজার টাকা ঘুষ লেনদেনের মুহূর্তে মোতাহারকে হাতেনাতে গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় তার প্যান্টের পকেট ও আলমারি থেকে আরো ৭৯ হাজার টাকা পাওয়া যায়। মোতাহার এই টাকার উৎস সম্পর্কে সন্তোষজনক জবাব দিতে পরেননি।

ফারুক হোসেনের ঢাকার কেরানীগঞ্জ উপজেলার বাঘৈর জামে মসজিদের নামে বিভিন্ন দাগে মোট ১.২৫ একর সম্পত্তি আছে। বাঘৈর জামে মসজিদ উন্নয়নের জন্য মসজিদের নামে ওয়াকফকৃত সম্পত্তি থেকে ০.৯৪ একর সম্পত্তি বিক্রির অনুমতির জন্য ২০১৩ সালের ১ আগস্ট বাংলাদেশ ওয়াকফ প্রশাসক বরবার ঢাকা আবেদন করেন তিনি।

(ঢাকাটাইমস/২২জানুয়ারি/এএকে/ডব্লিউবি) 

সংবাদটি শেয়ার করুন

অপরাধ ও দুর্নীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত