ইউএস বাংলা বিমান দুর্ঘটনা

বাংলাদেশি ১৪ জনের মরদেহ শনাক্ত

ঢাকাটাইমস ডেস্ক
| আপডেট : ১৭ মার্চ ২০১৮, ১৯:৫২ | প্রকাশিত : ১৭ মার্চ ২০১৮, ১৯:৩৬

নেপালের ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ইউএস বাংলার বিমান বিধ্বস্তের ঘটনায় ১৪ বাংলাদেশির মরদেহ শনাক্ত করা গেছে। দুর্ঘটনার পাঁচ দিন পর মরদেহগুলো তাদের স্বজনদের দেখানো হচ্ছে বলেও জানিয়েছে কাঠমান্ডুর ইউনিভার্সিটি টিচিং হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

শনিবার সন্ধ্যায় ইউনিভার্সিটি টিচিং হাসপাতালের ফরেনসিক বিভাগ শনাক্ত হওয়া বাংলাদেশি মরদেহগুলোর নাম সম্বলিত একটি তালিকা প্রকাশ করে। এসময় হাসপাতালটির ফরেনসিক বিভাগের প্রধান প্রমোদ শ্রেষ্ঠা ও নেপালে যাওয়া বাংলাদেশি মেডিক্যাল টিমের সদস্য ও ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ফরেনসিক বিভাগের প্রধান সোহেল মাহমুদ উপস্থিত ছিলেন।

শনাক্ত হওয়া বাংলাদেশিদের মধ্যে অনিরুদ্ধ জামান, তাহিরা তানভীন শশী, মিনহাজ বিন নাসির, রাকিবুল হাসান, মতিউর রহমান, রফিক উজ জামান, তামারা প্রিয়ন্ময়ী, আকতার বেগম, হাসান ইমাম, এসএম মাহমুদুর রহমান, বিলকিস আরা, বিমানটির পাইলট ক্যাপ্টেন আবিদ সুলতান, কো-পাইলট পৃথুলা রশিদ ও কেবিন ক্রু খাজা সাইফুল্লাহর মরদেহ রয়েছে।

তালিকায় বাংলাদেশি রফিকুজ্জামান ও তার ছেলে অনিরুদ্ধের নাম থাকলেও তার স্ত্রী সানজিদা হকের এবং বৈশাখী টেলিভিশনের রিপোর্টার আহমেদ ফয়সালের নাম পাওয়া যায়নি।

জানা যায়, দুর্ঘটনায় নিহতদের মধ্যে বাংলাদেশি মরদেহ ছাড়া ১০ জন নেপালি ও একজন চীনা নাগরিকের মরদেহ শনাক্ত করা হয়েছে। শনিবার সন্ধ্যায় তালিকা দেয়া হবে শুনে সারাদিন ইউনিভার্সিটি টিচিং হাসপাতালের সামনে অপেক্ষমাণ স্বজনরা ভিড় করেন।

প্রসঙ্গত, গত ১২ মার্চ নেপালের ত্রিভুবন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে বেসরকারি বিমান সংস্থা ইউএস বাংলার একটি বিমান বিধ্বস্ত হয়ে ৫১ জনের প্রাণহানি হয়েছে। ইউএস বাংলার ওই ফ্লাইটে ৬৭ যাত্রী ও চার ক্রুসহ ৭১ জন যাত্রী ছিলেন।

নিহতদের মধ্যে বাংলাদেশের ২৬ জন, নেপালের ২২ জন ও  একজন চীনের। এছাড়া আহতদের মধ্যে ১০ জন বাংলাদেশি, ১২ জন নেপালের ও একজন মালদ্বীপের নাগরিক রয়েছেন।

ঢাকাটাইমস/১৭মার্চ/ডিএম

সংবাদটি শেয়ার করুন

জাতীয় বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত