চরফ্যাশনে দুই যুবলীগ নেতাকে কুপিয়ে জখম

ভোলা প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ১৮ মার্চ ২০১৮, ০০:৩১ | প্রকাশিত : ১৮ মার্চ ২০১৮, ০০:১৯

ভোলার চরফ্যাশন উপজেলার নুরাবাদ ইউনিয়ন যুবলীগের সাবেক সভাপতি মো. হাসান (৪০) ও যুবলীগ নেতা মো. জয়নাল (৩২)কে কুপিয়ে জখম করেছে একদল অস্রধারী সন্ত্রাসী।

শনিবার সন্ধ্যার পর হাজিরহাট বাজার থেকে ফেরার পথে তাদের ওপর এ হামলা হয়। তাদের বাড়ি নুরাবাদ ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ডে।

জানা গেছে, পূর্ব শত্রুতার জের ধরে ইউনিয়নের চাপরাশি বাড়ির দরজায় স্থানীয় আবুল বাশার চাপরাশির ছেলে মুরাদ, ফুয়াদ ও রাজিবসহ একদল সন্ত্রাসী চাপাতি ও পিস্তল নিয়ে তাদের ওপর হামলা চালান। এ সময় জয়নালের বুক ও হাতে এবং হাসানের পিঠে চাপাতি দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর জখম করা হয়।

হামলার শিকার জয়নাল ও হাসানের ভাতিজা মো. কামরুল জানান, সন্ধ্যায় হাজিরহাট বাজার থেকে হাসান ও জয়নাল মোটরসাইকেল যোগে বাড়ি যাচ্ছিলেন। এ সময় তারা চাপরাশি বাড়ির দরজায় আসলে আবুল বাসার চাপরাশির ছেলে মুরাদ, ফুয়াদ ও রাজিবের নেতৃত্বে একদল অ¯্রধারী সন্ত্রাসী চাপাতি দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে দুজনকেই গুরুতর জখম করে। এক পর্যায়ে চাপাতির কোপে তারা দিশেহারা হয়ে পাশের একটি বাড়িতে দৌড়ে পালাতে গেলে পেছন দিক থেকে তাদেরকে গুলি করা হয়। পরে তাদের ডাক-চিৎকারে আশপাশের লোকজন এসে তাদেরকে উদ্ধার করে চরফ্যাশন হাসপাতালে নিয়ে আসেন। তাদের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদেরকে উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়েছেন।

কামরুল আরও জানান, হামলাকারী মুরাদ বিভিন্ন সময়ে এলাকায় সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড করে আসছে। এবং মুরাদের নামে চাদাবাজি, ধর্ষণ ও মারামারি মামলাসহ চরফ্যাশন থানায় বেশ কয়েকটি মামলা রয়েছে।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত মুরাদের ফোনে একাধিকবার চেষ্টা করেও তার ফোন বন্ধ পাওয়া যায়।

চরফ্যাশন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এনামুল হক ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, আহতদের উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশালে পাঠানো হয়েছে। এবং অভিযুক্তদেরকে আসামি করে থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। তদন্তপূর্বক আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ঢাকাটাইমস/১৮মার্চ/প্রতিনিধি/ইএস

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত