প্রধানমন্ত্রীর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালন করেনি ইবি ছাত্রলীগ

ইবি প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৭ মে ২০১৮, ২১:১৪

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় (ইবি) শাখা ছাত্রলীগ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৩৬তম স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস বৃহস্পতিবার। স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে কোন কর্মসূচি পালন করেনি ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগ। এ নিয়ে নেতাকর্মীদের মাঝে ক্ষোভ বিরাজ করছে।

বৃহস্পতিবার বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৩৬তম স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস উপলক্ষে দেশব্যাপী নানা কর্মসূচি পালন করেছে আওয়ামী লীগসহ সহযোগী অন্যান্য সংগঠন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক ছাত্রলীগ কর্মী বলেন, ‘স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবসের মত এমন একটি গুরুত্বপূর্ণ প্রোগ্রাম পালন না করা ছাত্রলীগের জন্য বড় ব্যর্থতা। যেদিনে জননেত্রী শেখ হাসিনা নির্বাসিত জীবন সমাপ্ত করে বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়ার প্রত্যয় নিয়ে দেশে ফেরেন এবং বর্তমানে তিনি সে লক্ষ্যে নিরালসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। সুতরাং ছাত্রলীগ নেতৃবৃন্দের এই দিবসটি গুরুত্বের সাথে পালন করা উচিৎ ছিল।’

শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি শাহিনুর রহমান শাহিন বলেন, ‘বর্তমানে ক্যাম্পাস ছুটি থাকায় নেতাকর্মীদের মধ্যে অনেকেই ক্যাম্পাসে নেই। যে কারণে আজকের এই দিবসটি পালন করা সম্ভব হয়নি। তবে আমি আমি ব্যক্তিগতভাবে ঝিনাইদহ জেলা প্রোগ্রামে যোগদান করেছিলাম।’

প্রসঙ্গত, আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৩৬তম স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস বৃহস্পতিবার। দীর্ঘ নির্বাসন শেষে ১৯৮১ সালের ১৭ মে তিনি বাংলার মাটিতে ফিরে আসেন। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সপরিবারে নির্মমভাবে নিহত হন। তার দুই কন্যা শেখ হাসিনা ও শেখ রেহানা প্রবাসে থাকায় ঘাতকদের হাত থেকে রেহাই পান। জাতির ইতিহাসের এ বিষাদময় ঘটনার সময় স্বামী পরমাণু বিজ্ঞানী ড. এম এ ওয়াজেদ মিয়ার কর্মসূত্রে স্বামী ও বোন শেখ রেহানাকে নিয়ে জার্মানিতে অবস্থান করছিলেন শেখ হাসিনা। পরে দীর্ঘ প্রবাসজীবন শেষে ভারত হয়ে ১৯৮১ সালের ১৭ মে মাতৃভূমিতে প্রত্যাবর্তন করেন তিনি।

(ঢাকাটাইমস/১৭মে/প্রতিনিধি/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

শিক্ষা বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত