‘মুক্তিযুদ্ধের পক্ষে-বিপক্ষে কারা ছিল নতুন প্রজন্মকে জানাতে হবে’

জবি প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১২ জুলাই ২০১৮, ১৮:৫৯

মুক্তিযুদ্ধের সময় কারা পক্ষে ছিল, আর কারা বিপক্ষে ছিল তা আরো বিস্তারিতভাবে নতুন প্রজন্মকে জানাতে হবে বলে মন্তব্য করেছেন জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যাণয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মীজানুর রহমান।

বলেছেন, ‘ধর্মকে পুঁজি করে মুক্তিযুদ্ধের সময় বিরোধী শক্তিরা সুযোগ নিয়েছিল বা নেয়ার চেষ্টা করেছিল। সে সকল অপশক্তিরা আজও ধর্মকে ব্যবহার করে রাজনীতি করতে চায়। এ ব্যাপারে সকলকে সতর্ক থাকতে হবে।’

বৃহস্পতিবার জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে (জবি)আয়োজিত ‘মুক্তিযুদ্ধ ও সাংবাদিকতা’ শীর্ষক এক সেমিনারে এসব কথা বলেন তিনি। বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় মিলনায়তনে এ সেমিনারের আয়োজন করে গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগ।

উপাচার্য বলেন, ‘মুক্তিযুদ্ধের সময় সচিত্র প্রতিবেদন প্রকাশ পায় বিভিন্ন গণমাধ্যমে। তা একদিকে যেমন মুক্তিয্দ্ধুকালীন সময়ে বাঙালি জাতিকে উজ্জীবিত করতে সহায়তা করেছে, তেমনি আজও ওই সকল প্রতিবেদন ইতিহাসের অকাট্য দলিল হিসেবে বিবেচিত হয়।’

এসময় উপাচার্য সেমিনারে উপস্থাপিত মুক্তিযুদ্ধকালীন সাংবাদিকতার সোর্স হিসেবে প্রবন্ধটি নতুন প্রজন্ম ব্যবহার করতে পারবে বলেও মন্তব্য করেন।

সেমিনারে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে সাবেক তথ্য কমিশনার অধ্যাপক ড. মো. গোলাম রহমান বলেন, ‘মুক্তিযুদ্ধের আগে ষাটের দশকে পূর্ব বাংলার অবস্থা, বাংলার অর্থনীতি, বঞ্ছনা, যে বৈষম্য ব্যবস্থা কায়েম করা হয়েছিল, তখনকার সাংবাদিকেরা অনেক কষ্ট করে উপস্থাপন করেছিলেন। গণতন্ত্র, ভাষা আন্দোলন, ছয় দফা আন্দোলন, ৬৯ এর গণঅভ্যুত্থান, ৭০ এর নির্বাচন সব কিছুতেই সাংবাদিকদের অবস্থান ছিল স্পষ্ট। আর এসকল আন্দোলনের চূড়ান্ত রূপ হচ্ছে মুক্তিযুদ্ধ। সংবাদপত্রে যে অবিচ্ছিন্ন ধারা এবং সাংবাদিকরা যে ঐতিহাসিক দায়িত্ব পালন করেছেন তা অনেক গুরুত্বপূর্ণ।’

গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের চেয়ারম্যান ড. শাহ্ মো. নিসতার জাহান কবীরের সভাপতিত্বে ‘মুক্তিযুদ্ধ ও সাংবাদিকতা’ শীর্ষক মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন মুক্তিযোদ্ধা ও বিশিষ্ট সাংবাদিক হারুন হাবীব।  এর ওপর আলোকপাত করেন দৈনিক সমকাল পত্রিকার নির্বাহী সম্পাদক মুস্তাফিজ শফি। এছাড়া স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক অবন্তী মেহতাজ এবং উপস্থাপনা করেন প্রভাষক মো. মিনহাজ উদ্দীন। বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক ও শিক্ষার্থীবৃন্দ সেমিনারে অংশ নেন।

(ঢাকাটাইমস/ ১২জুলাই/ আইএইচ/ডিএম)

সংবাদটি শেয়ার করুন

শিক্ষা বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত