রুশ হস্তক্ষেপ বিষয়ে ট্রাম্পের ইউটার্ন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৮ জুলাই ২০১৮, ১৭:০২

মার্কিন নির্বাচনে রুশ হস্তক্ষেপ বিষয়ে ইউটার্ন নিয়েছেন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। তিনি বলেছেন, ২০১৬ সালে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রুশ হস্তক্ষেপ নিয়ে মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থার প্রতিবেদন তিনি মেনে নিয়েছেন। অথচ মাত্র একদিন আগে তিনি উল্টো কথাই বলেছিলেন। খবর বিবিসির।

সোমবার ফিনল্যান্ডের রাজধানী হেলসিংকিতে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে এক শীর্ষ বৈঠকের পর সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, ‘নির্বাচনে রাশিয়ার মাথা ঘামানোর কোনো কারণ নেই।’  ট্রাম্পের এই বক্তব্যের পর যুক্তরাষ্ট্রে তীব্র সমালোচনা শুরু হয়। ট্রাম্পের মিত্ররা তার অবস্থান পরিষ্কার করার আহ্বান জানায়।

তবে ট্রাম্প সোমবার তার দেয়া বক্তব্য ভুল ছিল বলে স্বীকার করেছেন। সর্বশেষ বক্তব্যে ট্রাম্প বলেছেন, মার্কিন গোয়েন্দা বাহিনীর ওপর তার ‘পূর্ণ আস্থা এবং সমর্থন’ রয়েছে।

সোমবার পুতিনের সঙ্গে দুই ঘন্টাব্যাপী বৈঠকে ট্রাম্পের কি আলোচনা হয়েছে তার পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও আগামী সপ্তাহে অনুষ্ঠিতব্য কংগ্রেসে জানাবেন।

সোমবার বৈঠকের পর এক যৈাথ সংবাদ সম্মেলনে ট্রাম্পকে জিজ্ঞেস করা হয়, নির্বাচনে হস্তক্ষেপ করার অভিযোগের বিষয়ে তিনি তার নিজের গোয়েন্দা সংস্থা না রাশিয়ার প্রেসিডেন্টকে বিশ্বাস করবেন।

উত্তরে ট্রাম্প বলেন,  ‘রাশিয়া এটি কেন করবে তার কোনো কারণ দেখি না আমি। রাশিয়া এটি করেনি বলে জোরালোভাবেই জানিয়েছেন প্রেসিডেন্ট পুতিন।’

ক্রেমলিনের নেতাকে বিশ্বাস না করে গোয়েন্দা  সংস্থাগুলোকে  বিশ্বাস  করার কোনো  কারণ  নেই বলে জানান ট্রাম্প।

তবে এখন ট্রাম্প বলছেন, তিনি তার বক্তব্য পর্যালোচনা করেছেন এবং এই বিষয় তিনি স্পষ্ট করে দিতে চান।

তিনি বলেন, ‘আমার বক্তব্যের মূল বাক্যগুলো হচ্ছে, আমি বলেছে ‘করতে পারে না’-এর পরিবর্তে ‘হতে পারে’ বলেছি।’

‘আমার বলা উচিত ছিল: ‘আমি কোনো কারণ দেখছি না, কেন আমি না বা কেন রাশিয়া হবে না। এখানে দুটি নেতিবাচক বাক্য।’

ট্রাম্প আরো বলেছেন, ‘২০১৬ মার্কিন নির্বাচনে রাশিয়ার হস্তক্ষেপ নিয়ে যে গোয়েন্দা প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়েছে তা আমি গ্রহণ করছি। অন্যান্য ব্যক্তিরাও তা করতে পারে। বাইরের অনেকেই তা পারে।’  

তিনি বলেছেন, এই হস্তক্ষেপ নির্বাচনে কোনো প্রভাব ফেলেনি। যে নির্বাচনে ডেমোক্র্যাট প্রার্থী হিলারি ক্লিনটন পরাজিত হয়েছিলেন।  

(ঢাকাটাইমস/১৮জুলাই/এসআই)

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত