কোটা পর্যালোচনা কমিটির মেয়াদ বাড়ল ৯০ দিন

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২০ জুলাই ২০১৮, ০৯:০৮ | প্রকাশিত : ১৯ জুলাই ২০১৮, ২২:৩৪
ফাইল ছবি

সরকারি চাকরিতে বিদ্যমান কোটা পদ্ধতি পর্যালোচনার বিষয়ে সরকার গঠিত কমিটির মেয়াদ ৯০ কর্মদিবস বাড়ানো হয়েছে।

আজ বৃহস্পতিবার এ-সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করেছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়।

গত ২ জুলাই গঠিত কোটা পর‌্যালোচনা কমিটিকে ১৫ কর্মদিবসের মধ্যে প্রতিবেদন দিতে সময় বেঁধে  দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু এর মধ্যে কমিটির কাজ শেষ না হওয়ায় এখন ৯০ কার্যদিবস বাড়ানো হলো।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলমের নেতৃত্বাধীন কমিটির অন্য সদস্যরা হলেন লেজিসলেটিভ ও সংসদবিষয়ক বিভাগের জ্যেষ্ঠ সচিব মোহাম্মাদ শহিদুল হক, অর্থ বিভাগের সচিব মোহাম্মদ মুসলিম চৌধুরী, জনপ্রশাসনসচিব ফয়েজ আহম্মদ, মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক সচিব অপরূপ চৌধুরী, সরকারি কর্মকমিশনের সচিব আকতারী মমতাজ এবং প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত সচিব সাজ্জাদুল হাসান।

গঠিত হওয়ার পর কমিটি গত ৮ জুলাই প্রথম সভা করে। সেখানে  দেশ-বিদেশের কোটাসংক্রান্ত তথ্য ও প্রতিবেদন সংগ্রহ করার সিদ্ধান্ত নেয় হয়। এসব তথ্য-প্রতিবেদন পাওয়ার পর দ্বিতীয় সভায় পরবর্তী পদক্ষেপ নেওয়ার কথা ছিল।

সরকারি চাকরিতে বিদ্যমান  কোটা সংস্কারের দাবিতে শিক্ষার্থী ও চাকরিপ্রার্থীরা দীর্ঘদিন ধরে আন্দোলন করে আসছেন। গত ৮ এপ্রিল শাহবাগ এলাকায় আন্দোলনকারীদের ওপর পুলিশের লাঠিপেটা ও কাঁদানে গ্যাসের শেল ছোড়ার ঘটনায়  এই আন্দোলন সারা দেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ছড়িয়ে পড়ে।  গত ১১ এপ্রিল কোটা সংস্কার আন্দোলনে সারা দেশ অচল হয়ে পড়ে। সেদিন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতীয় সংসদে কোটা বাতিলের ঘোষণা দেন।

কিন্তু তিন মাসেও প্রজ্ঞাপন জারি না হওয়ায় শিক্ষার্থীরা আবার নতুন করে মাঠে নামেন। গত কিছুদিনে আন্দোলনকারীদের ওপর ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা হামলা চালালে বিষয়টি আবার আলোচনায় আসে। এরই পরিপ্রেক্ষিতে গত ২ জুলাই পর্যালোচনা কমিটি গঠিত হয়।

বর্তমানে প্রথম ও দ্বিতীয় শ্রেণির সরকারি চাকরিতে ৫৫ শতাংশ নিয়োগ হয় অগ্রাধিকার কোটায়। বাকি ৪৫ শতাংশ নিয়োগ হয় মেধা কোটায়।

(ঢাকাটাইমস/১৯জুলাই/মোআ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

জাতীয় বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত