বড়পুকুরিয়া তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের একটি ইউনিট চালুর সিদ্ধান্ত

নিজস্ব প্রতিবেদক, দিনাজপুর
 | প্রকাশিত : ১৯ আগস্ট ২০১৮, ১৫:৪২

ঈদ-উল-আযহায় উত্তরের আট জেলায় নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহ নিশ্চিত করতে বন্ধ হয়ে যাওয়া দিনাজপুরের বড়পুকুরিয়া তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের একটি ইউনিট চালুর সিদ্ধান্ত নিয়েছে পিডিবি।

আগামী মঙ্গলবার থেকে কেন্দ্রের ১২৫ মেগাওয়াটের দ্বিতীয় ইউনিটটি চালু হবে। তবে তা ৭০-৮০ থেকে ১২৫ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন করতে সক্ষম হবে বলে জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

বড়পুকুরিয়া তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রধান প্রকৌশলী আব্দুল হাকিম  জানান, কেন্দ্রের ২টি ইউনিটে ৫২৫ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদনের ক্ষমতা রয়েছে। এর মধ্যে একটি ইউনিট সার্ভেসে রয়েছে। যার উৎপাদন ক্ষমতা ১২৫ মেগাওয়াট। আর বাকি ১২৫ এবং ২৭৪ মেগাওয়াটের ইউনিট দুইটি  পরবর্তীতে চালুর সিদ্ধান্ত রয়েছে।

১২৫ মেগাওয়াটের ইউনিটটি চালু রাখতে হলে দৈনিক ১ হাজার ২০০ মেট্রিক টন কয়লার প্রয়োজন রয়েছে। আর ২৭৫ মেগাওয়াট ইউনিট চালু করতে প্রয়োজন পড়বে ২ হাজার ৮০০ মেট্রিক টন কয়লা।

এদিকে কয়লার অভাবে বড় পুকুরিয়ার তাপ বিদ্যুৎকেন্দ্র বন্ধ থাকায় লোডশেডিংয়ের কবলে পড়েছে উত্তরের ৮ জেলার মানুষ। গড়ে ৮ ঘণ্টা লোডশেডিং হচ্ছে।

তাপমাত্রা দিনাজপুরে রবিবার ৩৮ থেকে ৩৯ ডিগ্রি সেলসিয়াসে ওঠানামা করেছে। অসহ্য ভ্যাপসা গরমে অতিষ্ট হয়ে উঠেছে এ অঞ্চলের জীবনযাত্রা।

উত্তরের ৮ জেলার জন্য প্রতিদিন বিদ্যুৎ প্রয়োজন হয় ৬৫০ মেগাওয়াট। তার মধ্যে বড় পুকুরিয়া থেকেই নেয়া হতো ৫২৫ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ। বড় পুকুরিয়ার কয়লা ভিত্তিক তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ৩টি উইনিট চালু রাখতে প্রতিদিন কয়লার  প্রয়োজন ৪ থেকে ৫ হাজার মেট্রিক টন।

(ঢাকাটাইমস/১৯আগস্ট/প্রতিনিধি/ওআর)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত