রাজনীতি নিয়ন্ত্রণে মিডিয়ার হাত বেঁধেছে সরকার: নজরুল

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১৮:৫১

সংসদে পাস হওয়া ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের সমালোচনা করে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান বলেছেন, রাজনীতিকে নিয়ন্ত্রণ করার জন্য সরকার ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মাধ্যমে মিডিয়ার হাত বেঁধে দিয়েছে।

বৃহস্পতিবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবে আয়োজিত ‘অবাধ ও নিরপেক্ষ নির্বাচন আদায়ে ঐক্যবদ্ধ আন্দোলনের ভূমিকা ও আমাদের করণীয়’ শীর্ষক আলোচনা সভায় তিনি এ কথা বলেন। আলোচনা সভার আয়োজন করে নাগরিক অধিকার আন্দোলন ফোরাম।

নজরুল ইসলাম বলেন, ‘সরকারের রাজনৈতিক কৌশল যদি হয় বিরোধী রাজনৈতিক দল থাকতে পারবে না, মিডিয়া থাকতে পারবে না, স্বাধীন বিচার বিভাগ থাকতে পারবে না, তাহলে গণতন্ত্র থাকছে কোথায়?’

ডিজিটাল  নিরাপত্তা আইন নিয়ে রাজনৈতিক দল, সুশীল সমাজ, লেখক, সাংবাদিক সবাই প্রতিবাদ করলেও কোনো কাজ হয়নি বলে অভিযোগ করেন বিএনপির এই জ্যেষ্ঠ নেতা। বলেন, আইন পাস হয়েই গেছে। আবার স্বাধীন সাংবাদিকতার অধিকার হারাল গণমাধ্যম।

নজরুল ইসলাম বলেন, ‘যদি মিডিয়া না থাকত আমরা বহু মানুষের অন্যায়-অনাচার দেখতে পেতাম না বা জানার সুযোগ হতো না। এমনকি আমাদের বহু আন্দোলন সফল হতো না। আজকে সেই মিডিয়ার হাত বেঁধে দেওয়া হয়েছে। এতে ক্ষমতাসীন সরকারের ক্ষমতা ছাড়া কিছুই থাকছে না।'

সাবেক প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার প্রকাশিত বইয়ের কথা তুলে ধরে বিএনপির নেতা বলেন, 'সাবেক প্রধান বিচারপতির বইয়ের কথাগুলো বিচার বিভাগের স্বাধীনতা প্রমাণ করে না। প্রমাণ করে সরকার ও তার দলের লোকেরা বিচার বিভাগ নিয়ন্ত্রণ করছে।’

একুশ আগস্ট গ্রেনেড হামলা তারেক রহমানকে জড়ানো হয়েছে দাবি করে  নজরুল বলেন, ‘তারেক রহমানের বিরুদ্ধে একের পর এক মামলা দেওয়া হচ্ছে। তারই ধারাবাহিকতায় সরকার তারেক রহমানকে গ্রেনেড হামলা মামলায় জড়িয়ে রায় দিতে যাচ্ছে।’ সরকারে কাজ দেখতে দেখতে  মানুষ  সব বুঝে গেছে বলে মন্তব্য করেন তিনি।

কারাবন্দি খালেদা জিয়ার অসুস্থতার কথা উল্লেখ বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য বলেন, ‘কিছুদিন আগেও খালেদা জিয়া অসুস্থ হয়ে পড়ে গেছেন। তিনি হাঁটতে পারেন না, চলতে পারেন না। তার চোখের অবস্থা এতো খারাপ যে চিকিৎসা না নিলে অন্ধ হয়ে যেতে পারেন। এত কিছু জানার পরও মায়ের জাত আমাদের প্রধানমন্ত্রী কোনো উদ্যোগ নিয়ে তার চিকিৎসার ব্যবস্থা করেননি।’

সরকারের উদ্দেশে বিএনপির এই জ্যেষ্ঠ নেতা  বলেন, ‘আপনাদের হিংসা চরিতার্থ করতে তাকে জেলে দিয়ে শাস্তি দেওয়া তা তো হয়েছে। কিন্তু তাকে বিনা চিকিৎসা মারার অপরাধ তিনি করেননি। তাই অবিলম্বে তার সুচিকিৎসার দাবি জানাচ্ছি।'

(ঢাকাটাইমস/২০সেপ্টেম্বর/বিইউ/মোআ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত