‘গানে বেঁচে থাকবেন আইয়ুব বাচ্চু’

বিনোদন প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৯ অক্টোবর ২০১৮, ১২:৪১

বাংলা ব্যান্ডের প্রবাদ পুরুষ আইয়ুব বাচ্চুকে শেষ শ্রদ্ধা জানাতে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের সামনে নেমেছিল হাজারো মানুষের ঢল। কারো হাতে ফুল, কারো কাধে গিটার। সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের উদ্যোগে শেষ শ্রদ্ধা জানানোর এ আয়োজনটি সকাল ১০টা ২৫ মিনিট থেকে শুরু হয়। চলে দুপুর ১২ টাও বেশি সময় ধরে।

প্রয়াত কিংবদন্তী শিল্পীকে শ্রদ্ধা জানাতে শহীদ মিনার চত্ত্বরে হাজির হয়েছিল আওয়ামী লীগ, বিএনপি, জাতীয় পার্টি ও জাসাসসহ বড় কয়েকটি রাজনৈতিক দল। ছিল অভিনয় শিল্পী সংঘ ও ডিরেক্টরস গিল্ডসহ আরো অনেক সংগঠন।

সেখানে ছিলেন আওয়ামী লীগ সরকারের সড়ক যোগাযোগ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের, সংস্কৃতিমন্ত্রী ও অভিনেতা আসাদুজ্জামান নূর, অভিনেত্রী সুবর্ণা মুস্তফা, সরকার ও গীতিকার কবীর বকুল, কণ্ঠশিল্পী কুমার বিশ্বজিৎ, ফকির আলমগীরসহ অনেকে।  

প্রয়াত আইয়ুব বাচ্চুকে শেষ শ্রদ্ধা জানাতে গিয়ে সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর বলেন, ‘বাংলা ব্যান্ড সঙ্গীতকে আজকের অবস্থানে আনার পেছনে আইয়ুব বাচ্চুর অনেক বড় অবদান রয়েছে। এ দেশের ব্যান্ড সঙ্গীত জগত তাকে চিরদিন মনে রাখবে।’

কথা বলতে গিয়ে কণ্ঠ জিড়য়ে যাচ্ছি অভিনেত্রী সুবর্ণা মুস্তাফার। তিনি বলেন, ‘আইয়ুব বাচ্চু আর আমাদের মাঝে ফিরবেন না। আর গাইবেন না। কিন্তু তার প্রতিটি গানে মাধ্যমে আমাদের মাঝে তিনি চিরদিনই বেঁচে থাকবেন। ’

সঙ্গীতশিল্পী ফকির আলমগীর বলেন, ‘একজন সহযোদ্ধাকে অকালে হারালাম। এই যন্ত্রণা ভাষায় প্রকাশ করা যায় না। কিন্তু নিয়ম মেনে নিতে হয় আমাদের। সবাইকে মরতে হবে। কিন্তু বাংলা গান এবং ব্যান্ড জগত আইয়ুব বাচ্চু নামটা সারাজীবন মনে রাখবে।’

শহীদ মিনারে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে আইয়ুব বাচ্চুর মরদেহ নিয়ে যাওয়া হবে জাতীয় ঈদগাহ ময়দানে। সেখানে জুমার নামাজের পর তার প্রথম জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। এরপর মগবাজারে কাজি অফিস গলিতে আইয়ুব বাচ্চুর গান তৈরির কারখানা ‘স্টুডিও এবি কিচেন’-এ শেষবারের মতো তার মরদেহ নিয়ে যাওয়া হবে।

সেখানে আনুষ্ঠানিকতা শেষে চ্যানেল আই প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত হবে দ্বিতীয় জানাজা। এরপর আইয়ুব বাচ্চুর মরদেহ রাখা হবে স্কয়ার হাসপাতালের হিমঘরে। সেখান থেকে নেয়া হবে শিল্পীর নিজ শহর চট্টগ্রামে। শনিবার সেখানেই পারিবারিক কবরস্থানে মায়ের কবরের পাশে আইয়ুব বাচ্চুর মরদেহ দাফন করা হবে।

বৃহস্পতিবার সকাল ৯টার দিকে আইয়ুব বাচ্চুকে তার মগবাজারের বাসা থেকে অচেতন অবস্থায় রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে নিয়ে যান পরিবারের সদস্যরা। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক পরীক্ষা-নীরিক্ষা শেষে সকাল সাড়ে ৯টার দিকে তাকে মৃত ঘোষণা করেন। চিকিৎসক জানান, হৃদরোগে মৃত্যু হয় কিংবদন্তী এ শিল্পীর।

ঢাকাটাইমস/১৯ অক্টোবর/আরইউ/এএইচ

সংবাদটি শেয়ার করুন

বিনোদন বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত