লক্ষ্মীপুরে ভিজিএফের ২২ বস্তা জব্দ

নিজস্ব প্রতিবেদক, লক্ষ্মীপুর
 | প্রকাশিত : ২০ অক্টোবর ২০১৮, ২০:৩৬

নিষেধাজ্ঞার সময় সরকারিভাবে বরাদ্দ ভিজিএফের চাল জেলেদের না দিয়ে কালোবাজারে বিক্রি করে দেয়ার অভিযোগ উঠেছে লক্ষ্মীপুরের রামগতির চরআবদুল্লাহ ইউপি চেয়ারম্যান কামাল উদ্দিনের বিরুদ্ধে।

শনিবার সকালে আলেকজান্ডার বাজারে চেয়ারম্যান কামাল উদ্দিনের নিজস্ব কার্যালয়ের পাশে জামাল উদ্দিনের গুদামঘরে অভিযান চালান উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা মোহাম্মদ রফিকুল হক। এসময় গুদামঘর থাকা ২২ বস্তা ভিজিএফের চাল উদ্ধার করে এবং ওই প্রতিষ্ঠানের মালিক জামাল উদ্দিনকে আটক করা হয়।

এ দিকে চর আবদুল্লাহ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও ইউপি চেয়ারম্যান কামাল উদ্দিন ওই চাল বিক্রির সাথে নিজের জড়িত থাকার কথা অস্বীকার করে বলেন, চাল তিনি বিক্রি করেননি। চাল জেলেদের কাছ থেকে কালাম কিনে নিয়ে বিক্রি করেছেন। ইউপি চেয়ারম্যান নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে একটি মহল তার বিরুদ্ধে অপ্রচার ও ষড়যন্ত্র করে আসছে। সে ষড়যন্ত্রের শিকার। তবে আটক জামাল উদ্দিন ও কালাম  এ বিষয়ে কোন মন্তব্য করতে রাজি হননি।

রামগতি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ রফিকুল হক জানান, গোপন সংবাদে রামগতি থানা পুলিশকে সঙ্গে নিয়ে আলেকজান্ডার বাজারে জামাল উদ্দিনের গুদামঘরে অভিযান চালায়। নিষেধাজ্ঞার সময়ে জেলেদের জন্য বরাদ্দ ভিজিএফের ২২ বস্তা চাল জব্দ এবং ওই প্রতিষ্ঠানের মালিক জামাল উদ্দিনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়। এ ঘটনার সাথে জড়িতদের বিরুদ্ধে উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তাকে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করার জন্য নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

প্রজনন মৌসুমে মা ইলিশ রক্ষায় লক্ষ্মীপুরে মেঘনায় ১০০ কিলোমিটার এলাকায় ৭ অক্টোবর মধ্য রাত থেকে ২৮ অক্টোবর পর্যন্ত ২২ দিন ইলিশসহ সকল ধরনের মাছ ধরা নিষিদ্ধ করেছে জেলা মৎস্য বিভাগ। এই ২২ দিন রামগতির আলেকজান্ডার থেকে চাঁদপুরের ষাটনাল এলাকা পর্যন্ত মাছ ধরার ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে। এসময় সবরকমের ইলিশ সংরক্ষণ, আহরণ, পরিবহন, বাজারজাত ও মজুদ নিষিদ্ধ রয়েছে। নিষেধাজ্ঞার সময় প্রত্যেক জেলেকে ২০ কেজি করে ভিজিএফের চাল বরাদ্দ দেয় সরকার।

(ঢাকাটাইমস/২০অক্টোবর/এএইচ/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত