তানিম যুবায়ের, এখনও আঁধারে

নজরুল ইসলাম বাহার
| আপডেট : ২২ অক্টোবর ২০১৮, ১৩:৫৯ | প্রকাশিত : ২২ অক্টোবর ২০১৮, ১২:৫৩

তানিম যুবায়ের একজন নিভৃতচারী লেখক। লেখালেখি করছেন এক দশকেরও বেশি সময় ধরে। তার প্রকাশিত সৃজনশীল গ্রন্থসংখ্যা পাঁচটি। যার ভেতর গল্প, কবিতা, উপন্যাস সবই আছে। লেখালেখির জগতে তার পদার্পণ বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়া অবস্থায়। হতাশা, বিষণ্নতা এবং নানা অপ্রাপ্তি থেকেই নাকি তিনি লেখার টেবিলে বসেছিলেন। তার প্রকাশিত প্রথম দুটি বইতে এসবের ছায়াও পড়েছিল।

তানিমের লেখালেখির শুরুটা কবিতা দিয়ে। প্রথমে লিখেছিলেন কবিতার বই ‘ঈশ্বর সমীপে’। সেখানে বিধাতার কাছে জানিয়েছিলেন কিছু আর্জি। আবার পরের বইতে বিধাতার সেই ক্ষমতা খর্ব করতে চাইলেন। সেটি ছিল উপন্যাস। দ্রোহের মার্জিত রূপ। আমারও এই লেখকের প্রথম বই প্রকাশ। বেশ সাহসী চিন্তাধারা এবং বৈচিত্রময় উপস্থাপন। বোল্ড এন্ড বিউটিফুল। এই উপমাটি ব্যবহার করতে ইচ্ছে হল এবং তা যথার্থই মনে হচ্ছে।

তারপর আরেকটি উপন্যাস ‘রানীকুঠি’। যেখানে এক অনাথ বালিকাকে উপজীব্য করে মানবতার জয়গান গেয়েছেন তিনি। তার পরের দুটি বই গল্পের। পৃথিবীর মোহ। প্রথম গল্পের বই। পৃথিবীর মোহ ছাড়া অন্য গল্পগুলো আমাকে তেমন টানতে পারেনি। কিছু গল্প মনে হয়েছে একদম আনাড়ি হাতে লেখা। যেমনটি পাওয়া গিয়েছিল তার কয়েকটি কবিতায়। তবে ‘পৃথিবীর মোহ’ গল্পটি চমৎকার। এক সিটিংয়ে পড়ে ফেলা যায়। দ্রোহের মার্জিত রূপ উপন্যাসটিও তেমন। তবে এটি বেশ বড়। চাইলেও এক সিটিংয়ে শেষ করা যাবে না। তবে আপনার মন পড়ে থাকবে কখন আরেকটু পড়ার সুযোগ পাবেন।

বলছিলাম ‘পৃথিবীর মোহ’ গল্পটি নিয়ে। এই গল্পের মাধ্যমেই লেখকের চিন্তার গভীরতা টের পাওয়া যায়। তিনি আর দশ জনের থেকে ভিন্ন কিছু ভাবতে পারেন। অনেকাংশে প্রচলিত ধ্যান ধারণার তোয়াক্কা না করে। তিনি তার লেখার একটা নিজস্বতা, স্বকীয়তা আনতে পেরেছেন। আমি লেখকের নাম না দেখেও বলে দিতে পারব- এটা তানিম যুবায়েরের পান্ডুলিপি। পৃথিবীর মোহের চেয়ে তার দ্বিতীয় গল্পের বই দুটি পরিচয় এর সবগুলো গল্পই ভালো লেগেছে।

তানিম যুবায়ের, বাংলাদেশের একজন শক্তিমান লেখক হিসেবে আবির্ভূত হবেন, এটি আমি বিশ্বাস করি। কারণ তার কলমে জোর আছে এবং লেখনী শক্তিশালী। আমি প্রকাশকের অবস্থান ও আমার দায়িত্ববোধ থেকে তার কথা বলছি। কারণ আমার মনে হয় না এমন একজন লেখককে আড়ালেই পড়ে থাকতে দেয়া উচিত। সমাজের মানুষকে, দেশের মানুষকে তার লেখার মাধ্যমে মোটিভেট করা, জাগ্রত করার ক্ষমতা তিনি রাখেন। তার বইগুলো সংগ্রহ করতে পারেন সংশ্লিষ্ট প্রকাশনী অথবা জনপ্রিয় অনলাইন বুক শপগুলো থেকে।

লেখক: প্রকাশক

সংবাদটি শেয়ার করুন

সাহিত্য বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত