সংখ্যালঘুদের নিরাপত্তা চায় ১৪ দল

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২০ নভেম্বর ২০১৮, ২২:৩৬ | প্রকাশিত : ২০ নভেম্বর ২০১৮, ২২:১৬
মোহাম্মদ নাসিম । ফাইল ছবি

আগামী জাতীয় নির্বাচনে ভোটের আগে ও পরে ধর্মীয় এবং জাতিগত সংখ্যালঘুদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার দাবি জানিয়েছে ১৪ দল। ক্ষমতাসীন জোটের মুখপাত্র মোহাম্মদ নাসিম বলেন, ‘যখনই দেশে নির্বাচন আসে, তখন একটি অপশক্তি দেশের সংখ্যালঘুদের ভয়ভীতি দেখানোর চেষ্টা করে। অনেক সময় আঘাত করার চেষ্টা করে। তাই তাদের নিরাপত্তা দিতে হবে।’

মঙ্গলবার বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে মুক্তিযোদ্ধা, একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটি, এবং হিন্দু, বৌদ্ধ, খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের সঙ্গে বেঠক করে ১৪ দল। বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন নাসিম।

১৪ দলের মুখপাত্র বলেন, ‘নির্বাচন যেহেতু শুরু হয়ে গেছে, এখন থেকে সংখ্যালঘু ভাই-বোনদের নিরাপত্তা দিতে এবং সেসব এলাকাগুলো নিরাপত্তা দিতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীকে বলা হয়েছে।’

‘নির্বাচনের সময় ও পরে সংখ্যালঘুদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হবে, এ ব্যাপারে কোনো গাফিলতি সহ্য করা হবে না।’
বৈঠক সম্পর্কে নাসিম বলেন, ‘১৪ দল ও উপস্থিত মুক্তিযোদ্ধা এবং ঐক্য পরিষদের নেতৃবৃন্দ আগামী নির্বাচনে শেখ হাসিনার নেতৃত্বে মুক্তিযুদ্ধের শক্তির বিজয় নিশ্চিত করার জন্য মাঠে, ময়দানে কাজ করবে।’

১৪ দলের ঘোষণা অনুযায়ী আগামী ১৪ ডিসেম্বর থেকে কিংবা তার আগে থেকে ডিসেম্বর মাসের শুরু থেকে বিজয় মঞ্চের কাজ শুরু হবে বলেও জানান নাসিম। বলেন, সব জেলা ও উপজেলায় হবে এই বিজয় মঞ্চ।

সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের নাসিম বলেন, ‘যারা বঙ্গবন্ধুর কথা বলেন, মুজিব কোট এখনো পরে থাকেন, তারা বঙ্গবন্ধুর খুনি-পৃষ্ঠপোষকদের সঙ্গে হাত মিলিয়েছেন। এর বিচার ৩০ ডিসেম্বর জনগণ দিয়ে দেবে।’

মুক্তিযোদ্ধাদের সংগঠনের পক্ষে নৌপরিবহন মন্ত্রী শাজাহান খান, সেক্টর কমান্ডার কে এম সফিউল্লাহ, ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির নির্বাহী সভাপতি শাহরিয়ার কবির, জাসদের সাধারণ সম্পাদক শিরীন আখতার, আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক খালিদ মাহমুদ চৌধুরী প্রমুুখ এ সময় উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজনীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত