নিজের গল্পের নাটকে শমী কায়সার

বিনোদন প্রতিবেদক, ঢাকা টাইমস
 | প্রকাশিত : ২১ নভেম্বর ২০১৮, ১৩:৫৬

এক সময়ের তুখোড় নাট্য অভিনেত্রী শমী কায়সার। অভিনয় থেকে এখন তিনি অনেকটাই দূরে। ব্যবসায়িক কাজ নিয়েই বর্তমানে ব্যস্ত থাকেন নায়িকা। পাশাপাশি সামলান এফবিসিসিআই-এর সভাপতির পদ। তবে খুব শিগগিরই টিভির পর্দায় আসছেন তিনি। তাও আবার নিজের লেখা গল্পের নাটকে। নাম ‘সাড়ে তিন খানা চিঠি’।

শমীর গল্পটি ১৯৭১ সালের ভয়াবহ বুদ্ধিজীবী হত্যার ঘটনার ওপর লেখা। এই গল্পের বেশিরভাগ অংশই সত্য ঘটনা থেকে নেয়া। সেই গল্পকে একই নামে টিভির পর্দায় আনছেন জনপ্রিয় নাট্য নির্মাতা চয়নিকা চৌধুরী। এর বিভিন্ন চরিত্রে শমী কায়সার ছাড়াও অভিনয় করছেন আবুল হায়াত, শর্মিলী আহমেদ, মাহফুজ আহমেদ ও আজম খানসহ অনেকে।

‘সাড়ে তিন খানা চিঠি’ নাটকটি আগামী ১৪ ডিসেম্বর বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে দুপুর তিনটা ৫ মিনিটে চ্যানেল আইয়ে প্রচারিত হবে। এটি সম্পর্কে নির্মাতা চয়নিকা চৌধরী বলেন, ‘শমী কায়সার এখন আগের মতো অভিনয় করেন না। বছরে দু-একটা কাজ করেন। নিজের লেখা গল্পে তিনি দুর্দান্ত অভিনয় করেছেন। এরই মধ্যে তিন দিন শুটিং হয়েছে। বাকি শুটিং বধ্যভূমিতে করব।’

১৯৭১ সালের ১৪ ডিসেম্বর অভিনেত্রী শমী কায়সারের বাবা শহীদুল্লা কায়সারকে পাকিস্তানি সেনারা ধরে নিয়ে যায়। হত্যা করা হয় তাঁকে। সেদিনের অনুভূতির জায়গা থেকেই এই গল্পটি তিনি লিখেছেন বলে জানান শমী কায়সার। অভিনেত্রীর কথায়, নতুন প্রজন্মের কাছে ১৪ ডিসেম্বরের সেই ঘৃণ্য অধ্যায়কে তুলে ধরার জন্যই গল্পটি ছোট পর্দায় তুলে ধরা হচ্ছে।’

নাটকের কাহিনিতে দেখা যাবে, ‘শমী কায়সারের একটি ধনী পরিবারে বিয়ে হয়। শ্বশুর রাজাকার। শ্বশুরবাড়ির লোকজন মুক্তিযুদ্ধকে ‘গণ্ডগোল’ বলে উপহাস করে। শমীর বাবার মৃত্যুদিনে তারা বাড়িতে নানারকম পার্টি করে। যদিও তার স্বামী(মাহফুজ আহমেদ) সব সময় তার পাশে থেকে সহযোগিতা করে। এমন টানাপড়েনের মধ্য দিয়েই এগিয়ে যাবে নাটকের গল্প।

ঢাকা টাইমস/২১ নভেম্বর/এএইচ

সংবাদটি শেয়ার করুন

বিনোদন বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত