সরকারি নিয়োগ পরীক্ষায় জালিয়াত চক্রের ৭ সদস্য গ্রেপ্তার

নিজস্ব প্রতিবেদক
 | প্রকাশিত : ০৮ ডিসেম্বর ২০১৮, ২০:২৩

বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের নিয়োগ পরীক্ষায় অংশগ্রহণকারীকে প্রলোভন দেখাতো তারা। তারপর পাঁচ থেকে দশ লাখ টাকায় চুক্তিতে ইলেকট্রনিক ডিভাইস ব্যবহার করে পরীক্ষায় অসাধু উপায় অবলম্বন করত। জালিয়াত চক্রের এমন ৭ সদস্যকে গ্রেপ্তার করে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) গোয়েন্দা বিভাগের সিরিয়াস ক্রাইম ইনভেস্টিগেশন বিভাগ।

গত শুক্রবার রাজধানীর সিদ্ধেশ্বরী, মিরপুর ও কলাবাগান এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয় বলে ডিএমপির গোয়েন্দা বিভাগের সিরিয়াস ক্রাইম ইনভেস্টিগেশন বিভাগ গতকাল সংবাদ সম্মেলন করে জানায়।

গ্রেপ্তার ব্যক্তিরা হলেন- সোহেল রানা, রবিউল আউয়াল, মাহমুদুল, আনসারুল ইসলাম, দেবাশীষ, রাজিউর রহমান ও রেজাউল করিম। এদের মধ্যে তিন জন পরীক্ষার্থী আর অন্য চারজন চক্রটির সদস্য। তাদের কাছ থেকে প্রশ্নপত্র প্রেরণের আটটি ডিভাইস, ২৯টি ব্যাটারি, তিনটি পেনড্রাইভ, নয়টি ব্লুটুথ ডিভাইস, বিভিন্ন মোবাইল অপারেটরের নয়টি সিমকার্ড এবং আটটি মোবাইল ফোন সেট জব্দ করা হয়।

ডিএমপির উপকমিশনার (মিডিয়া) মো. মাসুদুর রহমান বলেন, প্রতিটি সরকারী নিয়োগ পরীক্ষায় জন প্রতি প্রত্যেকের কাছ থেকে পাঁচ থেকে ১০ লাখ টাকার চুক্তি হত। চুক্তি অনুযায়ী পরীক্ষার কেন্দ্রে ডিভাইসের মাধ্যমে পরীক্ষার্থীদের কাছে প্রশ্নপত্র পাঠিয়ে দিত এই চক্রটি।

‘এই চক্রের একজন সোহেল রানা এর আগেও আমাদের হাতে গ্রেপ্তার হয়েছিল। তার উপরে আমাদের গোয়েন্দা নজরদারি ছিল। গত শুক্রবার মাদক নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের নিয়োগ পরীক্ষায় এই চক্রটি আবার সক্রিয় হয়। ইলেকট্রনিক ডিভাইস ব্যবহার করে উত্তরপত্র সরবরাহ করার চেষ্টা করে। তখন আমরা তাদের গ্রেপ্তার করি। তাদের ব্যবহৃত ডিভাইসগুলো এতই সূক্ষ্ম যে কারও প্রতি সন্দেহ না হওয়া পর্যন্ত বোঝার ক্ষমতা নেই। এ ঘটনায় তাদের বিরুদ্ধে রমনা মডেল থানায় একটি মামলা হয়েছে।’

ঢাকাটাইমস/০৮ডিসেম্বর/এএ/ডিএম

সংবাদটি শেয়ার করুন

অপরাধ ও দুর্নীতি বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :