আইপিএল নিলামের প্রথম রাউন্ডে অবিক্রীত মুশফিক

ক্রীড়া ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ১৮ ডিসেম্বর ২০১৮, ১৯:৫১ | প্রকাশিত : ১৮ ডিসেম্বর ২০১৮, ১৯:১৪

২০১৯ আইপিএলে ক্রিকেটারদের নিলামের প্রথম রাউন্ডে দল পাননি মুশফিকুর রহিম। ৫০ লাখ রুপি বেস প্রাইসে থাকা বাংলাদেশি উইকেটরক্ষকের প্রতি আগ্রহ দেখায়নি কেউ। 

তাছাড়া এখনও পর্যন্ত ক্রেতা পেলেন না যুবরাজ সিং। ক্যারিয়ারের সেরা সময়ে আইপিএল নিলামে ১৬ কোটি রুপি পর্যন্ত দাম পেয়েছেন তিনি। কিন্তু গতকাল প্রথম রাউন্ডের নিলামে ৩৭ বছরের যুবরাজকে কিনেনি কোনো দল। ১ কোটি টাকা বেস প্রাইস ধরে নিলামে এসেছেন তিনি। যদিও ফ্র্যাঞ্চাইজিরা বিক্রি না হওয়া যে ক্রিকেটারদের ফের হাজির করে, সেই তালিকায় থাকলে পরে নিলামে ক্রেতা পেলেও পেতে পারেন তিনি। এখন পর্যন্ত ক্রেতা পাননি, এমন হাইপ্রোফাইল ক্রিকেটারদের দলে রয়েছেন চেতেশ্বর পূজারা, ব্রেন্ডন ম্যাককালাম, আলেক্স হেলস, ক্রিস ওকস, মার্টিন গাপটিল, ডেল স্টেইন।

বিদেশী খেলোয়াড়দের মধ্যে এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ দাম ওঠেছে ইংলিশ অলরাউন্ডার স্যাম কারেনের। ৭.২ কোটিতে তাকে কিনে নিয়েছে পাঞ্জাব। তার বেস প্রাইস ছিল ২ কোটি। তাছাড়া ২ কোটি বেস প্রাইসের কলিন ইনগ্রাম ৬.৪ কোটিতে বিক্রি হয়েছেন দিল্লি ক্যাপিটালসে। নিউজিল্যান্ডের লুকি ফার্গুসন বিক্রি হয়েছে দেড় কোটিতে। 

ভারতীয়দের মধ্যে সর্বোচ্চ দাম ওঠেছে বাঁ হাতি পেসার জয়দেব উনাদকাট আর লেগস্পিনার ভরুন চক্রবর্তীর। ফের বড় দান মারলেন উদানকাট। তাকে ৮.৪ কোটি রুপিতে কিনল রাজস্থান রয়্যালস। জয়দেবকে তারা আগে ছেড়ে দিয়েছিল। ৮.৪ কোটিতে ভরুনকে কিনে চমকই উপহার দিয়েছে পাঞ্জাব। ৯টি লিস্ট-এ আর একটি প্রথম শ্রেণির ম্যাচ খেলা ভরুনের বেস প্রাইস ছিল মাত্র ২০ লাখ!  টেস্ট ক্রিকেটার হনুমা বিহারীকে তার বেস প্রাইসের চারগুণ ২ কোটি টাকায় কিনে নেয় দিল্লি ক্যাপিটালস। 

ভারতীয় পেসারদের মধ্যে ভালো দর উঠেছে মোহাম্মাদ শামির। ১ কোটি বেস প্রাইসে থাকা শামিকে ৪.৮ কোটিতে কিনেছে পাঞ্জাব। আরেক পেসার মোহিত শর্মার তো পোয়াবারো! মাত্র ৫০ লাখ টাকা বেস প্রাইস ছিল তার। শেষ পর্যন্ত তাকে ৫ কোটিতে দলে নিয়েছে চেন্নাই। ইশান্ত শর্মাকে ১.১ কোটিতে কিনে নিয়েছে দিল্লি। 

১ কোটি বেস প্রাইসে থাকা বাঁহাতি স্পিনিং অলরাউন্ডার অক্ষর প্যাটেলকেও ৫ কোটিতে দলে নিয়েছে তারা। বাঁহাতি পেসার বারিন্দর ¯্রানকে মুম্বাই নিয়েছে ৩.৪ কোটিতে। তার বেস প্রাইস ছিল ৫০ লাখ। আরেক অলরাউন্ডার শিভাম ডুবিকে ৫ কোটিতে নিয়েছে ব্যাঙ্গালুরু। তার বেস প্রাইস ছিল মাত্র ২০ লাখ। 

অন্যদিকে, বিপুল দর পেয়েছেন ওয়েস্ট ইন্ডিজের ক্রিকেটাররা। ৫০ লক্ষ রুপি বেস প্রাইস ছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজের শিমরন হেটমায়ারের। কলকাতা নাইট রাইডার্স, রাজস্থান রয়্যালস, দিল্লি ক্যাপিটালস তাকে পাওয়ার চেষ্টা করেছিল। কিন্তু শেষ পর্যন্ত হেটমায়ারকে ৪.২ কোটি রুপিতে কিনল রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স। তার সতীর্থ ব্রেথওয়েটকে ৫ কোটি টাকায় কিনেছে কেকেআর। ২০১৬  টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের তারকাকে নিয়ে জোর দরযুদ্ধ হয় দীনেশ কার্তিকের নেতৃত্বাধীন কেকেআর ও কিংস ইলেভেন পঞ্জাবের।

ক্যারিবীয় উইকেটরক্ষক নিকোলাস পূরণও চড়া দর পেয়েছেন। তিনি টি-টোয়েন্টির আবিষ্কার, এখনও টেস্ট খেলেননি। তবে ৭৫ লক্ষ টাকা বেস প্রাইস দিয়ে শুরু করে তিনি দাম পেলেন ৪.২০ কোটি রুপি। তাকে কিনল কিংস ইলেভেন পঞ্জাব। শ্রীলঙ্কার পেসার লাথিস মালিঙ্গা গত বছর অবিক্রীত ছিল। এবছর ২ কোটিতে তাকে কিনেছে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স।

(ঢাকাটাইমস/১৮ ডিসেম্বর/ডিএইচ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

খেলাধুলা বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :