মিথ্যা মামলা থেকে বাঁচতে মাদ্রাসা সুপারের সংবাদ সম্মেলন

বরিশাল প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৫ অক্টোবর ২০১৬, ১৭:৩৯

বরিশালে সোমের্তবান মহিলা মাদ্রাসার প্রতিষ্ঠাতা সুপার মাওলানা মো. রফিকুল ইসলাম, শিক্ষিকা মোসা. নাসিমুন্নেসা ও তাহেরা বেগমের বিরুদ্ধে মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে সংবাদ সম্মেলন করেছেন মাদ্রাসার সুপার, শিক্ষক এবং শিক্ষার্থীরা।

শনিবার বিকালে ফকিরবাড়ি রোডস্থ শিক্ষক ভবনের এম.এ গফুর অডিটোরিয়ামে এ সংবাদ সম্মেলন হয়।

এসময় লিখিত বক্তব্যে সোমের্তবান মহিলা মাদ্রাসার সহ-সুপার মাওলানা মো. নুরুজ্জামান বলেন, মাদ্রাসার প্রতিষ্ঠাতা সুপার রফিকুল ইসলাম অবহেলিত গরিব বস্তিবাসীদের ইসলামী চেতনায় উৎজ্জীবিত করার জন্য একটি মাদ্রাসা প্রতিষ্ঠার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেন। তিনি হাটখোলা রোডস্থ বস্তি এলাকায় মাদ্রাসা করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে স্থানীয় ব্যক্তিদের সাথে আলোচনা করেন। আলোচনার সূত্র ধরে স্থানীয় ভূমিদস্যু নাছির উদ্দিন নেগাবানসহ একটি কুচক্রী মহল ভদ্র লোকের আবরণে তাদের কু-মতলব হাসিল করার জন্য নাছির উদ্দিন নেগাবান একটি জালিয়াতি দলিল উপস্থাপন করেন। নিজের মায়ের নাম সোমের্তবান করে সে সোমের্তবান মহিলা দাখিল মাদ্রাসা রফিকুল ইসলামের কর্তৃত্বে প্রতিষ্ঠিত করেন। যা খোদ রফিকুল ইসলামই জানেন না।

লিখিত বক্তেব্য তিনি বলেন, এর পরপরই বিভিন্ন সময় মাদ্রাসার শিক্ষা পরিবেশ নষ্ট করার চেষ্টা চালায় নাছির উদ্দিন নেগাবান। কোন কিছুতেই না পেরে রফিকুল ইসলাম, শিক্ষিকা মোসা. নাসিমুন্নেসা ও তাহেরা বেগমের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্রমূলক মামলা দায়ের করেন নেগাবান।

সংবাদ সম্মেলনে অন্যান্যের মধ্যে বরিশাল জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি সৈয়দ আনিসসহ মাদ্রাসার শিক্ষক এবং শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।

(ঢাকাটাইমস/১৫ অক্টোবর/প্রতিনিধি/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন ফিচার বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত