সেরা অ্যাকশন মুভি ‘মিশন ইম্পোসিবল: ফলাউট’

বিনোদন প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১৫ জানুয়ারি ২০১৯, ১৯:৪১

হলিউডের সিনেমার সঙ্গে পরিচিত যে কারো কাছে ‘মিশন ইম্পোসিবল’ এ দুটি শব্দ অপরিচিত নয়। একের পর এক দুর্দান্ত সব অ্যাকশন ফিল্মের উপহার দেওয়ার মাধ্যমে সিরিজটির যাত্রাপথ ধীরে ধীরে পুরো বিশ্বের লাখো কোটি সিনেমাপ্রেমীর অন্তরের অন্তঃস্থলে আলাদা এক স্থান পাকাপোক্ত করে নিয়েছে।

লস এঞ্জেলেসে  রোববার রাতে একত্রিত হন হলিউডের এক ঝাঁক উজ্জ্বল তারকা। উপলক্ষ ছিল ২৪তম অ্যানুয়াল ক্রিটিক চয়েস অ্যাওয়ার্ড। সেরা অ্যাকশন মুভির জন্য পুরস্কার নেওয়ার সময় যখন আসে, তখন ‘মিশন ইম্পোসিবল: ফলাউট’ ছবিটিকে বিজয়ী ঘোষণা করা হয়। এই বিভাগে অন্যান্য মনোনীতরা ছিলেন ‘অ্যাভেঞ্জারস: ইনফিনিটি ওয়ার’ এবং ‘ব্ল্যাক প্যান্থার’, ‘ডেডপুল ২’, ‘রেডি প্লেয়ার ওয়ান’ এবং ‘উইডো’।  

গেল বছরের ২৭ জুলাই এই সিরিজের ষষ্ঠ সিনেমা ‘মিশন: ই¤পসিবল-ফল আউট’ আন্তর্জাতিক পরিসরে মুক্তি পেয়েছিল। ক্রিস্টোফার ম্যাককুয়ারির পরিচালনায় এই মুভিতেও লিড চরিত্রে ছিলেন টম ক্রুজ।  সুপারম্যান খ্যাত হ্যানরি কেভিলকে এই মুভিতে বেশ হাস্যরসিকতায় পূর্ণ চরিত্র হিসেবেই দেখা যায়। ভিলেন রূপে তাকে আহামরি না লাগলেও, খারাপ লাগেনি। এ ছাড়া সিনেমার উল্লেখযোগ্য কোনো চরিত্রের কথা বলতে গেলে অভিনেত্রী রেবেকা ফার্গুসনের কথা বলতে হয়। নারী এজেন্ট রূপে তার উপস্থিতি ছিল দুরন্তপনা ও সাহসিকতায় ভরপুর। আর মুভিতে ‘ওয়াইট উইডো’ নামধারী  অভিনেত্রী ভেনেসা কিরবি ক্ষণকালের জন্য চোখ ধাঁধানো সৌন্দর্য নিয়ে পর্দার সামনে এসেছিলেন।

নির্মাতা ক্রিস্টোফার ম্যাককুয়ারি বাকি সব সিরিজ থেকে এই সিরিজটিকে সবচেয়ে অনন্য করার কাজটিকে চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েছিলেন। তাই তো, নিজেকে আরও একধাপ এগিয়ে নিতে গিয়ে তিনি নির্মাণ করে বসেন এই সিরিজের এযাবৎকালের সব থেকে অসাধারণ সিনেমাটি।

 

সংবাদটি শেয়ার করুন

বিনোদন বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত