মির্জাপুরে ডাকাতির চেষ্টা, আটক এসআইকে প্রত্যাহার

মির্জাপুর (টাঙ্গাইল) প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২১ জানুয়ারি ২০১৯, ২০:৫৩

টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে প্রবাসীর বাড়িতে ডাকাতি চেষ্টার অভিযোগে গ্রামবাসীর হাতে আটক মির্জাপুর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) সোহেল কদ্দুছকে টাঙ্গাইল পুলিশ লাইনে প্রত্যাহার করা হয়েছে।

ঢাকা টাইমসসহ একাধিক পত্রিকা ও অনলাইনে এ ডাকাতির চেষ্টার খবর প্রকাশ হলে ঊর্ধ্বতন পুলিশ কর্মকর্তার নির্দেশে রাতেই তাকে টাঙ্গাইল পুলিশ লাইনে প্রত্যাহার করা হয়।

মির্জাপুর থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ কে এম মিজানুল হক বলেন, এসআই সোহেল কদ্দুছের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থাগ্রহণের জন্য ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তার কাছে লিখিতভাবে জানানো হলে তাকে টাঙ্গাইল পুলিশ লাইনে ক্লোজ করা হয়। আটক অন্যদের টাঙ্গাইল জেলা হাজতে পাঠানো হয়েছে।

আটক অন্যরা হলেন- মির্জাপুর থানার বাবুর্চি রংপুর জেলার শহিদুর রহমান ও সাইদুল ইসলাম, বহুরিয়া ইউনিয়নের কোর্ট বহুরিয়া গ্রামের আনোয়ার হোসেন, মীর দেওহাটা গ্রামের ফিরোজ মিয়া।

শনিবার রাত দুইটার দিকে সাদা পোশাকে মির্জাপুর থানার উপ-পরিদর্শক সোহেল কদ্দুছের নেতৃত্বে ৬-৭ জন যুবক উপজেলার গেড়ামারা গ্রামের আলমাছ মিয়ার বাড়িতে গিয়ে দরজা খুলতে বলেন। বাড়ির মালিক দরজা না খুলে তাদের পরিচয় জানতে চাইলে তারা নিজেদের পুলিশ পরিচয় দেন। বাড়ির মালিকের সন্দেহ হলে তিনি ডাকাত ডাকাত বলে চিৎকার করেন। চিৎকার শুনে গ্রামের লোকজন এগিয়ে এসে তাদের ঘেরাও করে আটক করে। এ সময় সেখান থেকে দুই যুবক পালিয়ে গেলেও এসআই সোহেল কদ্দুছসহ পাঁচজনকে আটক করে গ্রামবাসী।
খবর পেয়ে ভোরে এসআই কদ্দুছ ও থানার বাবুর্চিসহ পাঁচজনকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে পুলিশ।
এদিকে সোমবার মির্জাপুর উপজেলা আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভা উপজেলা পরিষদ মিলানায়তনে অনুষ্ঠিত হয়। সভায় অনেক সদস্য ডাকাতির ঘটনার সঙ্গে জড়িত এসআই সোহেল কদ্দুছের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করে বক্তৃতা করেন জানা গেছে।

(ঢাকাটাইমস/২১জানুয়ারি/এলএ)

 

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :