ভেনেজুয়েলা সংকট: কলম্বিয়া পৌঁছেছে যুক্তরাষ্ট্রের ত্রাণ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ঢাকা টাইমস
 | প্রকাশিত : ১৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ১৩:১৮

সংকট চলাকালীন সময়ে স্বঘোষিত প্রেসিডন্ট ও বিরোধী দলীয় নেতা হুয়ান গুইদোর আমন্ত্রণে ভেনেজুয়েলার উদ্দেশ্যে ত্রাণ পাঠিয়েছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র। ত্রাণবাহী মার্কিন বিমানবাহিনীর বিমান ভেনেজুয়েলা সীমান্তবর্তী কলম্বিয়ার কুকুটা শহরে অবতরণ করেছে। সেখান থেকে পরিবহনে করে এসব ত্রাণ সীমান্তে নিয়ে যাওয়া হবে। সেখান থেকে ছয় লক্ষাধিক কর্মী এসব ত্রাণ গ্রহণ করবে বলে জানিয়েছে গুইদো। খবর বিবিসি ও আল জাজিরার।

যুক্তরাষ্ট্রের ত্রাণের বিষয়ে স্বঘোষিত প্রেসিডেন্ট গুইদো বলেছেন, ২৩ ফেব্রুয়ারি ছয় লক্ষাধিক সেচ্ছাসেবী সীমান্ত থেকে এসব ত্রাণ বহন করে নিয়ে আসবে। এগুলো আমাদের সীমানা ও সীমানার বাইরে একত্রিত করবো। আমাদের সংগ্রাম চলতে থাকবে।

তবে দেশটির নির্বাচিত প্রেসিডেন্ট নিকোলাস মাদুরো যুক্তরাষ্ট্রের কোনো ত্রাণ গ্রহণ করতে অস্বীকার করেছেন। এছাড়া দেশটিতে সহিংসতা ও বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি হওয়ার জন্য যুক্তরাষ্ট্রকে দায়ী করে তাদের তীব্র সমালোচনা করেছেন তিনি। এছাড়া এই ত্রাণ ভেনেজুয়েলায় প্রবেশের অনুমতি পাবে কি না তা নিয়ে ধোঁয়াশা রয়েছে।

মার্কিন বিমান বাহিনীর সি সেভেন্টিন কার্গো বিমানে করে এসব ত্রাণ যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডা থেকে উড্ডয়ন করে কলম্বিয়ার কুকুটাতে অবতরণ করে। ইউএসএইড এর প্রসাশক মার্ক গ্রিন বলেন, ভেনেজুয়েলার জন্য এটি প্রথম ত্রাণ নয় এবং এটি শেষও নাই।

গত মাসে ভেনেজুয়েলায় নিজেকে প্রেসিডেন্ট হিসেবে ঘোষণা করেন বিরোধী দলীয় নেতা হুয়ান গুইদো। এরপরই নির্বাচিত প্রেসিডেন্ট নিকোলাস মাদুরো সমর্থকদের সঙ্গে গুইদো সমর্থকদের সহিংসতা ছড়িয়ে পড়ে। গুইদো নিজেকে প্রেসিডেন্ট হিসেবে দাবি করার পর সঙ্গে সঙ্গেই তাকে সমর্থন করে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রসহ বেশ কয়েকটি দেশ। তবে যুক্তরাষ্ট্রের বিরোধীতা করে নিকোলাস মাদুরোর পক্ষে সমর্থন ব্যক্ত করেছে রাশিয়া, চীন, তুরস্কসহ অন্য কয়েকটি দেশ।

একারণে ভেনেজুয়েলায় সংকট কাটার কোনো সম্ভাবনা আপাতত দেখা যাচ্ছে না। এছাড়া মার্কিন নিষেধাজ্ঞার কারণে ব্যাপক অর্থনৈতিক সংকটে পড়েছে দেশটি।

ঢাকা টাইমস/১৭ফেব্রুয়ারি/একে

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :