হেডফোনে গান শুনতে শুনতে ট্রেনের নিচে যুবক

চাঁদপুর প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ০৯ মার্চ ২০১৯, ১৬:৪৯
ফাইল ছবি

চাঁদপুর জেলাধীন হাজীগঞ্জ উপজেলার হাজীগঞ্জে ডেমু ট্রেনে কাটা পড়ে মো. রতন (৩০) নামের চাঁদপুর পল্লী বিদ্যুৎ সমিতি-১ এর একজন ড্রাইভারের মৃত্যু হয়েছে।  

শনিবার সকালে পৌরসভাধীন হাজীগঞ্জ এনায়েতপুর নামক স্থানে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত রতন পাবনা সদরের ১২নং ওয়ার্ড চকপৈলানপুর (নয়নামিত) গ্রামের মো. কালুর ছেলে। তিনি চাঁদপুর পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির শাহরাস্তি জোনাল অফিসে কর্মরত ছিলেন।
    
প্রত্যক্ষদর্শী সহকর্মীরা জানান, শনিবার সকালে চাঁদপুর-লাকসাম রেল পথের এনায়েতপুর নামক স্থানে রতন তার হেডফোন লাগিয়ে গান শুনতে শুনতে হাঁটছিলেন। এ সময় পেছন থেকে আসা লাকসামগামী ডেমু ট্রেনের হুইসেল ও সহকর্মীদের চিৎকারও শুনতে পাননি তিনি। ফলে ট্রেনের নিচে কাটা পড়ে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় তার।

চাঁদপুর রেলওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. সারোয়ার আলম জানান, রেলওয়ে থানার পুলিশ লাশটি উদ্বার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠিয়েছে।

পল্লী বিদ্যুতের এজিএম (প্রশাসন) জহুরুল ইসলাম জানান, আজ (শনিবার) এনায়েতপুর নামক স্থানে রেল লাইন সংলগ্ন এলাকায় পল্লী বিদ্যুতের মেনটেন্সের কাছ চলছিল। মেনটেন্সের মালামাল নিয়ে সকালে ড্রাইভার রতন ওই এলাকায় যায়। সেখানেই ট্রেনে কাটা পড়ে তার মৃত্যু হয়।

চাঁদপুর পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির (জিএম) জেনারেল ম্যানেজার মো. ঘটনাস্থলে সংবাদকর্মীদের জানান, নিহত রতনের ১ ছেলে ১ মেয়ে রয়েছে। দেড় বছর আগে রতন চাকরিতে যোগদান করেছে। তিনি শাহরাস্তি জোনাল অফিসে ড্রাইভার হিসেবে কর্মরত ছিলেন।

ঢাকাটাইমস/০৯মার্চ/ইএস

 

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :