আবরারের নামে ফুটওভার ব্রিজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২০ মার্চ ২০১৯, ১৩:০৭

বাসচাপায় নিহত বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রফেশনালসের (বিইউপি) শিক্ষার্থী আবরার আহমেদ চৌধুরীর নামে ফুটওভার ব্রিজ নির্মাণ করছে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন। প্রগতি সরণির যে জায়গাটিতে ঘাতকের বাসচাপায় আবরার প্রাণ হারান সেখানেই নির্মাণ করা হবে ওভারব্রিজটি। 

বুধবার সকালে ফুটওভার ব্রিজটির ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করা হয়। উদ্বোধক হিসেবে আবরারের বাবা ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) আরিফ আহাম্মেদ চৌধুরীর নাম লেখা হয়েছে। তবে তিনি আসতে না পারলেও উদ্বোধক হিসেবে নিজের নামের ক্ষেত্রে সম্মতি দিয়েছেন বলে জানান উত্তরের মেয়র আতিকুল ইসলাম।

মঙ্গলবার সকালে আবরারের মৃত্যুর পর এর প্রতিবাদে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভস্থলে আসেন মেয়র আতিকুল। এসময় শিক্ষার্থীরা নিরাপদ সড়ক ও আবরারের মৃত্যুর শাস্তির দাবিসহ আট দফা দাবি পেশ করে। পরে মেয়র দুই থেকে তিন মাসের মধ্যে ফুটওভার ব্রিজ করার ঘোষণা দেন।

সে অনুযায়ী বুধবার সকালে ফুটওভারব্রিজের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করতে আসেন মেয়র। এসময় ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়া ছাড়াও বিইউপির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

এসময় মেয়র জানান, ফুটওভারব্রিজটিরে ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপনের জন্য আবরারের বাবা ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) আরিফ আহাম্মেদ চৌধুরীকে অনুরোধ করা হলেও তিনি আসতে পারেননি। তবে সম্মতি দিয়েছেন।

তিনি শিক্ষার্থীদের সব দাবি ধাপে ধাপে মেনে নেয়ার ঘোষণা দিয়ে বলেন, ‘তোমাদের বলবো সবাই ক্লাসে ফিরে যাও। আমরা তোমাদের দাবিগুলো নিয়ে সর্বোচ্চ মহল পর্যন্ত আলাপ আলোচনা করে হলেও সমাধান করবো।’

শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে মেয়র বলেন, প্রত্যেক প্রতিষ্ঠান থেকে দুজন করে ছাত্রকে নিয়ে স্টুডেন্টস কাউন্সিল করা হবে। তোমরা তোমাদের দাবি এবং পরামর্শ নিয়ে সিটি করপোরেশনের অফিসে আসবে। তোমাদের সঙ্গে বসে সব বিষয় নিয়ে আলাপ আলোচনা করবো এবং প্রতি সপ্তাহ পর পর এর আপডেট আমরা জানাবো। শুধু নিরাপদ সড়কই নয়, আরো অনেক বিষয়ে তোমাদের পরামর্শ দেবে। এটা আমরা নতুন চালু করতে যাচ্ছি।

যত্রতত্র বাস পার্কিংসহ বেপরোয়া যান চলাচল বন্ধে পুলিশকে আরও জোরালো ভূমিকা রাখারও আহ্বান জানান মেয়র।

ডিএমপি কমিশনার শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে বলেন, তোমরা একেকজন চেঞ্জ মেকারের ভূমিকা পালন করবে। মানুষ যাতে ফুটপাত দিয়ে চলে, ওভারব্রিজ দিয়ে যায় সে ব্যাপারে উদ্বুদ্ধ করবে। 

ঢাকায় খুব শিগগির চক্রাকার বাস চলাচল শুরু হবে জানিয়ে তিনি বলেন, কিছু উন্নয়ন কাজের জন্য ঢাকায় এখন যান যানজট হচ্ছে।  তবে চক্রাকার বাস চালু হলে এবং এই প্রকল্পগুলোর কাজ শেষ হলে যানজট কমে আসবে।

ডিএমপি কমিশনার বলেন, আমরা এখন থেকে কঠোর অবস্থানে যাবো। কোনো ঢাকা মহানগরে কোনো বাস পাল্লা দিয়ে চালালে, সামনে ব্যারিকেড দিয়ে পেছনের বাস আটকালে সেই বাসের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

(ঢাকাটাইমস/২০মার্চ/বিইউ/জেবি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

জাতীয় বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :