জয়ের ব্যাপারে সন্দেহ নেই মোদির

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ঢাকা টাইমস
 | প্রকাশিত : ১৭ এপ্রিল ২০১৯, ১০:৩৪

ভারতের লোকসভা নির্বাচনে জয় নিয়ে বিন্দুমাত্র সন্দেহ নেই বর্তমান প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির। বরং তিনি আশাবাদী যে, ২০১৪ সালের থেকেও অনেক বেশি আসনে জয় পাবেন। ফলে আগের চেয়েও শক্তিশালী সরকার গঠন করবে বিজেপি। ‘টাইমস অফ ইন্ডিয়া’কে দেওয়া একান্ত সাক্ষাৎকারে এমনই ইঙ্গিত দিয়েছেন মোদি।

ভারতের প্রধানমন্ত্রী মনে করেন, দেশপ্রেমের কথা তুলছেন তারা, যারা দেশের জন্য কিছুই করেননি। বিজেপি শাসনে জাতীয় নাগরিক তালিকা ও নাগরিক বিল নিয়ে উত্তরপূর্বের রাজ্যগুলিতে অশান্তি হয়েছে। এ নিয়ে দেশের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে তিনি কী ভাবছেন? মোদির জবাব, নাগরিকপঞ্জির তালিকা তৈরি হচ্ছে সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে।

মহাজোটের প্রশ্নে তিনি টেনে আনেন সত্তরের দশকে দেশে জরুরি অবস্থার কথা। মোদি বলেন, ‘গণতন্ত্র বাঁচানোর স্বার্থে এর আগে সব দল জরুরি অবস্থার সময় একত্র হয়েছিল। তা হয়েছিল জাতীয় স্বার্থে। এই মহাভেজাল জোটের একত্রিত হওয়ার কারণ কী? আসলে তারা ব্যক্তিস্বার্থ ও ব্যক্তিগত লাভ ছাড়া কিছুই জানেন না। সে জন্যই এই সুবিধাবাদী জোট সর্বত্র পরাস্ত হবে।’

তিনি মনে করছেন, এসপি-বিএসপি জোট উত্তরপ্রদেশে বিজেপির ভোটব্যাঙ্কে কোনো প্রভাবই ফেলতে পারবে না। আগের বারের মতোই ৮০টির মধ্যে ৭৩টি আসনে জয় হবে এবারও।

গত পাঁচ বছরে অভূতপূর্ব কৃষক আন্দোলন হয়েছে, তারা দাম পাননি বলে করেছেন মহামিছিল। এই নিয়ে মোদীর কথা, ‘আমরা ২০২২ সালের মধ্যে কৃষকদের আয় যাতে দ্বিগুণ হয়, সেই ব্যবস্থা করেছি। এটা কোনও ফাঁপা প্রতিশ্রুতি নয়। কৃষি ক্ষেত্রে বীজ বপন থেকে বিপণন পর্যন্ত বিরাট সংস্কার হয়েছে।’

তার শাসনকালে বারবার এসেছে গোরক্ষার নামে সংখ্যালঘুদের উপর অত্যাচারের প্রসঙ্গ। এই যে চূড়ান্ত অসহিষ্ণুতা ও গোরক্ষকদের আইন নিজের হাতে তুলে নেওয়ার প্রবণতা, তা নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর জবাব, ‘আমি বরাবরই বলে এসেছি কারও নিজের হাতে আইন তুলে নেওয়া উচিত নয়। যারাই এই কাজের সঙ্গে যুক্ত, তাদেরই কড়া শাস্তি পাওয়া উচিত। আমরা সব সময়ই গণতন্ত্রের মূল্যবোধকে রক্ষা করার চেষ্টা করে এসেছি।’

ঢাকা টাইমস/১৭এপ্রিল/একে

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :