টি-টোয়েন্টিতে ২৫ বলে সেঞ্চুরি

ক্রীড়া ডেস্ক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২৪ এপ্রিল ২০১৯, ১৫:২৭ | প্রকাশিত : ২৪ এপ্রিল ২০১৯, ১৫:১৭

টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে দ্রুততম শতরানের রেকর্ড রয়েছে ক্রিস গেইলের। সেই রেকর্ড ভেঙে চুরমার হতো, যদি গ্লস্টারশায়ার সেকেন্ড একাদশ বনাম বেথ সিসি’র ফ্রেন্ডলি ম্যাচটি স্বীকৃত ম্যাচ হতো। ভেঙে যেতে পারতো টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে সর্বোচ্চ রানের ইনিংসের নজিরও, যা আয়ারল্যান্ডের বিরুদ্ধে কিছুদিন আগেই গড়েছে আফগানিস্তান।

২০১৩ সালের আইপিএলে পুনে ওয়ারিয়র্সের বিরুদ্ধে রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোরের হয়ে ১৭৫ রানের রেকর্ড ইনিংস খেলার পথে ক্রিস গেইল গড়েছিলেন ৩০ বলে সেঞ্চুরি করার নজির। শুধু টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটেই নয়, স্বীকৃত যেকোনো ফরম্যাটের ক্রিকেট ম্যাচে এটাই এখন পর্যন্ত দ্রুততম শতরানের রেকর্ড। গ্লস্টারশায়ার সেকেন্ড একাদশের হয়ে প্রীতি ম্যাচে জর্জ মুন্সেই মাত্র ২৫ বলে সেঞ্চুরি করেন। তবে ম্যাচটি স্বীকৃত না হওয়ায় গেইলের রেকর্ড ভাঙা হলো না তাঁর।

গত ২১ এপ্রিল অনুষ্ঠিত ম্যাচটিতে জর্জ তিনটি চার ও ৭টি ছক্কার সাহায্যে ১৭ বলে হাফ সেঞ্চুরি পূর্ণ করেন। পরের আট বলে তিনি সাতটি ছক্কা ও একটি চার মেরে পৌঁছে যান তিন অঙ্কে। অর্থাৎ ৪টি চার ও ১৪টি ছক্কার সাহায্যে ২৫ বলে শতরান পূর্ণ করেন মুন্সেই। হিউইয়ের এক ওভারে ছয়টি ছক্কাও হাঁকান গ্লস্টারের বাঁ-হাতি ওপেনার। শেষ পর্যন্ত ৫টি চার ও ২০টি ছক্কার সাহায্যে ৩৯ বলে ১৪৭ রান করে আউট হন তিনি।

কম যাননি জিপি উইলোজ ও টিজে প্রাইসও। উইলোজ ৫৯ বলে ১১৫ ও প্রাইস ২৩ বলে ৫০ রান করেন। গ্লস্টারশায়ার নির্ধারিত ২০ ওভারে ৩ উইকেটে ৩২৬ রানের বিশাল ইনিংস গড়ে তোলে। টি-টোয়েন্টিতে সর্বোচ্চ ইনিংসের নজির রয়েছে আফগানদের। আয়ারল্যান্ডের বিরুদ্ধে ৩ উইকেটে ২৭৮ রান তুলেছিল তারা। হযরতউল্লাহ জাজাই ৬২ বলে ১৬২ রান করেছিলেন সেই ম্যাচে। স্বীকৃত ম্যাচ হলে এই রেকর্ড গ্লুস্টাশায়ারের নামে লেখা থাকতো। জবাবে ব্যাট করতে নেমে বেথ সিসি ২০ ওভারে ৮ উইকেটে ২১৪ রান তোলে। ১১২ রানে ম্যাচ জেতে গ্লস্টারশায়ার।

(ঢাকাটাইমস/২৪ এপ্রিল/এসইউএল)

সংবাদটি শেয়ার করুন

খেলাধুলা বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :