লক্ষ্মীপুরে ঝড়ে লণ্ডভণ্ড চার শতাধিক ঘরবাড়ি, নিহত ১

নিজস্ব প্রতিবেদক, লক্ষ্মীপুর
| আপডেট : ০৪ মে ২০১৯, ১৫:৫২ | প্রকাশিত : ০৪ মে ২০১৯, ১৪:২০

ঘূর্ণিঝড় ফণির প্রভাবে সৃষ্ট ঝড়ো বাতাসে লক্ষ্মীপুরের রামগতি উপজেলার চার শতাধিক ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত হয়েছে। এর মধ্যে উপজেলার চরআলগী এলাকায় ঘর চাপা পড়ে আনোয়ারা বেগম নামে এক নারী নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন নারী-পুরুষসহ অন্তত ২০জন। তাদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

অপরদিকে মেঘনায় অস্বাভাবিক জোয়ার ও প্রবল ঢেউয়ে  নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। এতে আতঙ্কিত হয়ে পড়েছে নদীপাড়ের কয়েক লাখ মানুষ।

ঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত কয়েকজন জানান, গতকাল রাত ১২টার পর থেকে প্রচণ্ড ঝড় শুরু হয়। ভোর পর্যন্ত চলা ঝড়ে রামগতি উপজেলার চরআলগী, চরআবদুল্লাহ, চররমিজ, বড়খেরীসহ কয়েকটি ইউনিয়নের প্রায় চার শতাধিক বাড়িঘর বিধ্বস্ত হয়।

জেলা ত্রাণ ও দুর্যোগ কর্মকর্তা মাহফুজুর রহমান জানান, ঝড়ে ২৭৫টির মতো কাঁচা ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত হয়েছে। এছাড়া ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ১৫৫টি ঘরবাড়ি।

ঝড়ের কবলে পড়ে চরআলগী এলাকায় আনোয়ারা বেগম নামে এক নারী নিহত হন। আহত হন অন্তত ২০ জন। তাদের রামগতি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আহতদের মধ্যে পাঁচজনের অবস্থায় আশঙ্কাজনক বলে জানিয়েছেন হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক। খবর পেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা পরিদর্শনে যান স্থানীয় উপজেলা প্রশাসন। এ সময় ক্ষতিগ্রস্তদের মধ্যে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ করা হয়।

রামগতি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. রফিকুল হক ও প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মো. আমান উল্যা ঝড়ে ক্ষয়ক্ষতির বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

ঢাকাটাইমস/৪মে/প্রতিনিধি/এমআর

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :