মোদির পালানোর ৯৯ শতাংশ দরজা বন্ধ করেছি: রাহুল

ঢাকাটাইমস ডেস্ক
| আপডেট : ১৭ মে ২০১৯, ২১:৫৮ | প্রকাশিত : ১৭ মে ২০১৯, ২১:৪৪

ভারতের লোকসভা নির্বাচনের সপ্তম বা শেষ দফা ভোট আগামী রবিবার। ইতিমধ্যে আনুষ্ঠানিক প্রচারণা শেষ হয়েছে। রবিবারের ভোট সামনে রেখে শুক্রবার সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য দেন কংগ্রেসের সভাপতি রাহুল গান্ধী এবং বিজেপির সভাপতি অমিত শাহ ও প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। তারা পরস্পরের বিরুদ্ধে তুলেছেন নানা অভিযোগ আর উদগার করেছেন বিষ। 

শেষ দফার নির্বাচনী প্রচার শেষে সাংবাদিকদের মুখোমুখি রাহুল গান্ধী বেশ তোপ দাগেন মোদির উদ্দেশে। তিনি বলেন, ‘আমরা নরেন্দ্র মোদির সব মিথ্যা প্রকাশ করতে করতে পরিকল্পনা মাফিক পাঁচ বছর ধরে এগিয়েছি। ধীরে ধীরে তার সব দরজা বন্ধ করতে পেরেছি। তার পালানোর ৯৯ শতাংশ দরজাই আমরা বন্ধ করতে পেরেছি অত্যন্ত সফলভাবে যার প্রমাণ পাওয়া গেছে সদ্যসমাপ্ত মধ্যপ্রদেশ, রাজস্থান এবং ছত্তিসগড়ের বিধানসভা নির্বাচনের ফলাফলে। এই লোকসভা নির্বাচনেও সারা দেশে জয় পাবে ধর্মনিরপেক্ষ শক্তি।’ 

সংবাদ সম্মেলনে রাহুল যেসব বক্তব্য তুলেন, আনন্দবাজার সূত্রে তা নিচে দেওয়া হলো: 

নরেন্দ্র মোদি, আরএসএস এবং বিজেপির হাত রেখে রিজার্ভ ব্যাংক, সংবিধান, সুপ্রিম কোর্ট রক্ষা করার চেষ্টা করেছি। এসব প্রতিষ্ঠান আমাদের দেশের স্তম্ভ। আমাদের আওয়াজ দিয়েছে এই সব প্রতিষ্ঠান।

পাঁচ বছর আগে যখন মোদি প্রধানমন্ত্রী হিসেবে এসেছিলেন, তখন আমাদের অনেক প্রত্যাশা ছিল। ভেবেছিলান, কর্মসংস্থান, কৃষকদের জন্য অনেক কিছু করবেন। কিন্তু  দেশের পরিস্থিতি বুঝতে সম্পূর্ণ ব্যর্থ হয়েছেন উনি। এখন দেশকে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা করছেন, যা অত্যন্ত দুর্ভাগ্যজনক। মায়াবতী কী করবেন তা বলার দায়িত্ব আমার নয়। উনি কংগ্রেসের কেউ নন। উনি ওনার মতো রাজনীতি করেন। তারা কী বলছেন তা নিয়ে আমার কিছু বলার নেই। 

সাধারণ মানুষ কী করবেন, সেই উত্তর আমার দেবার অধিকার নেই। তারা যা ঠিক করবেন, তা ২৩ মে জানা যাবে।  

আমার সঙ্গে বিতর্ক করার সাহস হলো না নরেন্দ্র মোদীর। এতবার চ্যালেঞ্জ করলাম। নরেন্দ্র মোদির সমস্ত মিথ্যা বের করেছি। আমরা আমাদের কাজ পাঁচ বছর ধরে করেছি। এবার জনতার হাতে সবকিছু। 

ওর  মোদি) বাবা-মা কোনো ভুল করলেও আমি কিছু বলব না। এটা সৌজন্যের বিষয়। আমার বাবা-মাকে নিয়ে হাজার খারাপ কথা বললেও আমি বলব না। এটাই শিক্ষা। 

গত পাঁচ বছরে অনেক প্রশ্ন তুলেছি। একটাও উত্তর পাইনি। নোটবন্দি, গব্বর ট্যাক্স, বালাকোট, কোনও উত্তর আসেনি। 
কোনও প্রশ্নের জবাব দেন না নরেন্দ্র মোদি। এই প্রথমবার অমিত শাহের সঙ্গে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়েছেন দেখে ভালো লাগছে। সূত্র: আনন্দবাজার।

(ঢাকাটাইমস/১৭মে/মোআ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :