আলমাস-মোস্তফা মার্টেও নকল পণ্য!

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
| আপডেট : ২০ মে ২০১৯, ২২:১৪ | প্রকাশিত : ২০ মে ২০১৯, ২০:১২

চকবাজার ও জিঞ্জিরার নকল শ্যাম্পু ও  কসমেটিকস সামগ্রী বিদেশি বলে বিক্রির অভিযোগে আলমাস সুপার শপকে জরিমানা করা হয়েছে। সোমবার দুপুরে রাজধানীর বসুন্ধরা শপিং মলের অভিযান চালিয়ে প্রতিষ্ঠানটিকে এক লাখ টাকা জরিমানা করা হয়। একই অভিযোগে মোস্তফা মার্টকেও জরিমানা করা হয়েছে।

অভিযান শেষে ঢাকা জেলা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক আব্দুল জব্বার মন্ডল ঢাকাটাইমসকে বলেন, ‘বসুন্ধরা সিটির আলমাস সুপার শপ ও মোস্তফা মার্টের মতো স্বনামধন্য প্রতিষ্ঠান নকল ও ভেজাল পণ্য বিক্রি করে আসছিল। তাদের কসমেটিকস পণ্য, শ্যাম্পু, সাবান, ব্যাগসহ বিভিন্ন পণ্য বিদেশি বলে বিক্রি করছিল। কিন্তু সেসব পণ্যে কোন আমদানিকারক প্রতিষ্ঠানের নাম, ঠিকানা বা উৎপাদন তারিখ বা মূল্য লেখা ছিল না। ফলে ব্যাগের দাম নিজেদের মতো করে রাখছিল। আমাদের কাছে মনে হয়েছে কেরানীগঞ্জ, জিঞ্জিরা, চকবাজার ও মৌলভীবাজার থেকে নকল কসমেটিকস এনে বিদেশি বলে বিক্রি করা হচ্ছিলো। এসব পণ্য বিষয়ে তাদের কাছে কোন সদুত্তর পাওয়া যায়নি।’
‘মোস্তফা মার্ট বলেছে ল্যাগেজে করে আনা হয়েছে। অনেকে বাইরে থেকে আসার সময় নিয়ে এসেছে। তবে ল্যাগেজে করে এত পণ্য কিভাবে আনা সম্ভব? আমরা মনে করছি ভ্যাট, ট্যাক্স ফাঁকি দিয়ে অবৈধ পথে আনা হয়েছে এবং বেশি মুনাফার আশায় তারা এসব পণ্য বিক্রি করছিল। আর এভাবে পণ্য আনলে ভেজাল হওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে।  প্রতিষ্ঠানগুলোকে সতর্ক করে দেওয়া হয়েছে। এসব পণ্য যেন তাদের প্রতিষ্ঠানে না থাকে। তারা প্রতিশ্রুতি দিয়েছে আর বিক্রি করবে না। ’

দিনের পর দিন তাদের এসব কর্মকান্ড চলছে। এগুলো বন্ধে আমরা গোয়েন্দা নজরদারি রেখেছি। পরবর্তীতে এসব পণ্য বিক্রি করলে তাদের জরিমানা দ্বিগুণ করা হবে বলে হুঁশিয়ারি দেন আব্দুল জব্বার।
এছাড়াও অভিযানে বিবিবি কসমেটিকসকে ১ লাখ টাকা, সেভলি কসমেটিকসকে ৫০ হাজার টাকা, নিউর কসমেটিকস কে ৫০ হাজার টাকা এবং আমরিন ফ্যাশনকে ১০ হাজার টাকা করা হয়। পরে আমরিন ফ্যাশন দোকানটি সাময়িক বন্ধ করা হয়েছে।

ঢাকাটাইমস/২০মে/এসএস/ইএস

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজধানী বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :