প্রেমিকের সামনে পোশাককর্মীকে ‘দলবেঁধে ধর্ষণ’

নেত্রকোণা প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ০৭ জুন ২০১৯, ১৬:১৯

নেত্রকোণার কেন্দুয়ায় বেড়াতে গিয়ে প্রেমিকের সামনেই এক পোশাকশ্রমিককে দলবেঁধে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। ঘটনার পর থেকে প্রেমিকও উধাও হয়ে গেছেন।

বৃহস্পতিবার রাতে কেন্দুয়া-মদন সড়কের কুন্ডলী এলাকায় শাপলা ইটখলায় এ ঘটনা ঘটে।

ধর্ষণের শিকার নারী গাজীপুরে একটি পোশাক কারখানায় কাজ করেন। তার বাবার বাড়ি কেন্দুয়া উপজেলার মাসকা ইউনিয়নে। তিনি ঈদের ছুটিতে বাড়ি আসেন।

প্রেমিক সুমনের ঠিকানা এখনও নিশ্চিত করতে পারেনি পুলিশ।

ঘটনার পর থেকে অন্য ধর্ষকদের সঙ্গে প্রেমিকও লাপাত্তা বলে জানান কেন্দুয়া থানার ওসি রাশেদুজ্জামান। বলেন, ‘থানায় মামলা হয়েছে।’

ওসি জানান, ‘বেশ কয়েক বছর আগে ময়মনসিংহের আঠারবাড়ি এলাকার এক ছেলের সঙ্গে ওই নারীর বিয়ে হলেও তা ছাড়াছাড়ি হয়ে যায়। একটি পুত্র সন্তান রয়েছে ওই নারীর। তিন বছর ধরে সুমনের সঙ্গে গাজীপুরেই পরিচয় থেকে প্রেম হয়। পরে মৌখিকভাবে বিয়ের সূত্রে তারা স্বামী-স্ত্রী পরিচয়ে চলতেন। কিন্তু কখনই সুমনের বাড়িতে যাননি বা সুমনের আত্মীয়-স্বজনের সঙ্গেও ওই নারীর পরিচয় হয়নি। এমনকি সুমনের কোন ছবিও ওই নারীর কাছে নেই।’

তিনি জানান, ‘গতকাল মোটরবাইকে চড়ে সুমনের সঙ্গে বেড়ানোর এক পর‌্যায়ে ইটখলাটির কাছে মোটরসাইকেল থামান সুমন। এ সময় অন্য দুইজনের সঙ্গে তারা ইটখলায় যায়। সন্ধ্যা ঘনিয়ে এলে সুমনকে আটকে রেখে ওই নারীকে ধর্ষণ করে দুইজন। পরে সুমনসহ নারীকে ছেড়ে দিলে সুমনও পালিয়ে যায়। নারীটি সেখান থেকে একটি রিকশায় চড়ে থানায় এসে ঘটনা জানায়।’

ওসি আরো জানান, ‘প্রাথমিক তদন্তে ধারণা করা হচ্ছে- এই গণধর্ষণের ঘটনায় নারীর কথিত স্বামী সুমনও জড়িত। ধর্ষিতাকে  ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য নেত্রকোণা আধুনিক সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। পরিচয় নিশ্চিত করে সুমনসহ ধর্ষকদের ধরতে অভিযানে নেমেছে পুলিশ।’

(ঢাকাটাইমস/৭জুন/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :