তালা দেওয়া মসজিদ খুলে দিতে লিগ্যাল নোটিশ

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ১০ জুন ২০১৯, ১৬:৩৩

মালিকানা দাবি করে টাঙ্গাইলের ঘাটাইলে একটি মসজিদে তালা দেয়ার ঘটনায় অভিযুক্তদের তা খুলে দিতে লিগ্যাল (আইনি) নোটিশ পাঠিয়েছেন একজন আইনজীবী। সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী মো. মেহেদী হাসান আজ  সোমবার লিগ্যাল নোটিশটি পাঠান।

উপজেলার চর বকশিয়া গ্রামে মধ্যপ্রাচ্যের দেশ কুয়েতের অর্থায়নে ২০১৫ সালে মসজিদটি নির্মাণ করা হয়। দুবাই প্রবাসী বেলাল হোসেনও এই মসজিদে বিপুল টাকা অনুদান দেন। নির্মাণের পর গ্রামের মুসল্লিরা সেখানে নামাজ আদায় করে আসছিলেন। এর কিছুদিন পর বেলাল হোসেন ও তার ভাই ছালাম হোসেন মসজিদটি নিজেদের দাবি করে সেখানে তালা ঝুলিয়ে দেন। এ ছাড়া কাউকে কিছু না জানিয়ে মসজিদের ইমামকে তাড়িয়ে নতুন ইমাম নিয়োগ দেওয়া হয়। এরপর থেকেই নিজের ইচ্ছেমতো মসজিদ পরিচালনা করেন ছালাম।

নোটিশ পাওয়ার ২৪ ঘণ্টার মধ্যে মসজিদ খুলে দিয়ে এ জন্য স্থানীয় চেয়ারম্যানের কাছে চিঠি দিয়ে দুঃখ প্রকাশ করতে বলা হয় ছালামকে। নোটিশে সতর্ক করা   হয় এই বলে- ‘মসজিদে তালা দেয়ার ঘটনা সংবিধানের সুস্পষ্ট লঙ্ঘন এবং ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত ও ধর্মীয় চর্চায় বাধার শামিল। অন্যথায় আপনার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

ঢাকাটাইমসকে অ্যাডভোকেট মেহেদী হাসান বলেন, ‘রবিবার ঢাকাটাইমস২৪ ডটকমে টাঙ্গাইলে মসজিদে তালা দেওয়ার বিষয়ে সংবাদটি পড়ার পর আজ  লিগ্যাল নোটিশ পাঠিয়েছি। যদি মসজিদ খোলার ব্যবস্থা না করা হয় তাহলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।’

নোটিশে উল্লেখ করা হয়, মসজিদে তালা দেয়ার বিষয়টি ধর্মপ্রাণ মুসল্লিদের মনে আঘাত হেনেছে। ইসলাম ধর্মে নামাজ আদায় করার ওপর গুরুত্ব আরোপ করা হয়েছে। প্রত্যেক নাগরিকের ধর্ম অবলম্বন, পালন বা প্রচারের অধিকার সংবিধানের ৪১ নং অনুচ্ছেদ দ্বারা প্রতিষ্ঠিত। সেখানে মসজিদে মালিকানা দাবি করে তালা লাগানো সংবিধানের সুস্পষ্ট লঙ্ঘন এবং ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত ও ধর্মীয় চর্চায় বাধার শামিল।

নোটিশের সঙ্গে ঢাকাটাইমস২৪ ডটকমে প্রকাশিত খবরের কপিও যুক্ত করে দেয়া হয়।

(ঢাকাটাইমস/১০জুন/বিইউ/মোআ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :