তাবরেজের বাবারও মৃত্যু হয়েছিল গণপিটুনিতে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, ঢাকা টাইমস
 | প্রকাশিত : ২৭ জুন ২০১৯, ১৪:১৪

জয় শ্রীরাম স্লোগান না দেওয়ায় ১৮ ঘণ্টা ধরে গণপিটুনির জেরে মৃত্যু হয়েছে ভারতের ঝাড়খণ্ডের যুবক শামস তাবরেজ আনসারির। যা নিয়ে তোলপাড় সৃষ্টি হয়েছে ভারতে। এমন সময়ে প্রকাশ্যে এসেছে চাঞ্চল্যকর তথ্য। দেড় দশক আগে একই উপায়ে মৃত্যু ঘটেছিল তাবরেজের পিতারও। বৃহস্পতিবার এমনটি জানিয়েছেন তাবরেজের কাকা মারসুদ আলম।

ভারতীয় সংবাদ সংস্থা এএনআই জানিয়েছে, ১৫ বছর আগে গণপিটুনির কারণেই তাবরেজের পিতার মৃত্যু হয়। তাবরেজের কাকা জানান, ‘বন্ধুর সঙ্গে ঝামালে হয়েছিল এবং সেই কারণেই তাকে(তাবরেজের পিতা) খুন করা হয়’।

দেড় দশকের পুরনো স্মৃতি মনে করতে গিয়ে এখনও শিউরে ওঠেন মারসুদ। তিনি জানান, আচমকা নিখোঁজ হয়ে গিয়েছিলেন তাবরেজের পিতা। বেশ কয়েকদিন পরে তার দেহ উদ্ধার হয়েছিল। মারসুদ আলম বলেন, ‘মৃত্যুর এক সপ্তাহ পর আমরা দাদার মৃত দেহ পেয়েছিলাম’।

গত সপ্তাহে ঝাড়খণ্ডে মোটরবাইক চুরির অভিযোগ এনে ২৪ বছর বয়সি তাবারেজকে পিটিয়ে মেরে ফেলা হয়। তাকে পোলে বেঁধে সাত ঘন্টারও বেশি সময় ধরে পেটানো হয়, সেই সঙ্গে তাকে ‘জয় শ্রীরাম, জয় হনুমান’ বারবার বলতে বাধ্য করা হয়৷ এরপর বুধবার ভোরে সে অচৈতন্য হয়ে পড়লে তাকে পুলিশের হাতে তুলে দেওয়া হয়৷

তবরেজের আত্মীয়রা তার যথাযোগ্য চিকিৎসার কথা বললেও পুলিশ তা কানে নেয়নি বলে অভিযোগ৷ পুলিশ এবং যারা তবরেজকে মেরেছে তাদের বিরুদ্ধে কড়া পদক্ষেপের দাবি তুলেছে তাবরেজের পরিবার৷ এরই মধ্যে বেশ কয়েকজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

ঢাকা টাইমস/২৭জুন/একে

সংবাদটি শেয়ার করুন

আন্তর্জাতিক বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :