ডেঙ্গুর পর হার্ট অ্যাটাক, হার মানলেন চিকিৎসক

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ০৩ জুলাই ২০১৯, ১৮:০৫

দুটি ছেলে ও একটি মেয়েকে অনাধ করে পৃথিবী ছেড়ে গেলেন ডেঙ্গু আক্রান্ত এক চিকিৎসক। তবে তার মৃত্যুর কারণ হার্ট অ্যাটাক। দুই বার অ্যাটাকের ধকল সহ্য করতে পারেনি অ্যাডিস ভাইরাসে আক্রান্ত দেহটি।

বুধবার সকালে রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে মারা যান ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের ৩২ ব্যাচের শিক্ষার্থী নিগার। তিনি ঢাকার উত্তরার কুয়েত-বাংলাদেশ মৈত্রী সরকারি হাসপাতালে রেডিওলজি অ্যান্ড ইমেজিং বিভাগের জুনিয়র কনসালটেন্ট হিসেবে কাজ করতেন।

গত ১ জুলাই দিবাগত রাত দেড়টায় প্রচণ্ড জ্বর নিয়ে ধানমন্ডির পপুলার হাসপাতালে ভর্তি হন। সেখানে রক্ত পরীক্ষায় ডেঙ্গু ধরা পড়ে। চিকিৎসায় তার রক্তের প্লাটিলেট কিছুটা বাড়লেও পরে হৃদরোগেও আক্রান্ত হন তিনি। এক পর্যায়ে তাকে নিয়ে আসা যায় স্কয়ার হাসপাতালে। রাখা হয় আইসিইউতে। হাসপাতালে আনার ঘণ্টাখানেক পরেই তিনি মারা যান বলে জানিয়েছেন স্কয়ার হাসপাতালের কাস্টমার কেয়ারের ফরিদ উদ্দিন।

ঢাকা টাইমসকে ফরিদ বলেন, আজ  দশটার দিকে জরুরি বিভাগ থেকে আইসিইউতে নেয়া হয় ডা. নিগারকে। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বেলা ১১টার দিকে তার মৃত্যু হয়।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশন সেন্টার অ্যান্ড কন্ট্রোল রুমের সহকারী পরিচালক আয়েশা আকতার জানান, নিগার হাসপাতালে ভর্তির পর তার রক্তে প্লাটিলেট ছিল ১১ হাজার। পপুলারে কয়েক ঘণ্টার চিকিৎসায় প্লাটিলেট ১৫ হাজার হয়।

ভর্তির দিনেই দুপুর বেলা নিগার হৃদরোগে আক্রান্ত হন। দ্রুত চিকিৎসায় তিনি কিছুটা সুস্থ হন। রাত একটার দিকে আরেকবার কার্ডিয়াক অ্যারেস্ট হলে তাকে আইসিইউতে নেয়া হয়। আজ সকালে তাকে স্কয়ারে নিয়ে আসা হলে আরেকবার কার্ডিয়াক অ্যারেস্ট হয়ে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু হয় তার।

(ঢাকাটাইমস/০৩জুলাই/বিইউ/ডব্লিউবি)

সংবাদটি শেয়ার করুন

রাজধানী বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :