আশুলিয়ায় শিশু ধর্ষণচেষ্টা, চা দোকানি আটক

নিজস্ব প্রতিবেদক, সাভার
 | প্রকাশিত : ১১ জুলাই ২০১৯, ১৭:৫৪

সাভারের আশুলিয়ায় তৃতীয় শ্রেণির এক শিক্ষার্থীকে ধর্ষণচেষ্টায় অভিযোগে এক ব্যক্তিকে গণপিটুনী দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করেছে এলাকাবাসী।

শুক্রবার তাকে হেফাজতে নিয়েছে সাভার থানা পুলিশ। পুলিশ জানায়, আশুলিয়ার পল্লীবিদ্যুৎ হাজী সোনা মিয়া রোড এলাকা থেকে তাকে আটক করা হয়।

অভিযুক্ত শাহ আলম (৩৫) শেরপুর জেলার শ্রীবরদী থানার মুন্সীপাড়া গ্রামের জামাল উদ্দিনের ছেলে। সে আশুলিয়ার পল্লীবিদ্যুৎ হাজী সোনা মিয়া রোড এলাকায় তার চায়ের দোকান।

ভুক্তভোগীর বাবা অভিযোগ করেন, ৩ মাস আগে শাহ আলম ও তারা হাজী সোনা মিয়া রোড এলাকায় একই বাড়িতে ভাড়া থাকতেন। সে সময় শাহ আলম তার মেয়ের সাথে কূরুচিপূর্ণ আচরণ করায় তারা ওই বাসা ছেড়ে একটু দূরে অপর ভাড়া বাসায় চলে আসেন।

এ ঘটনার পর বৃহস্পতিবার বিকেলে তার শিশু মেয়ে ও তার বন্ধুরা মিলে শাহ আলমের দোকানের পেছনে খালি মাঠে খেলতে যায়। এই সুযোগে তার মেয়েকে মাঠের পাশের একটি টিনশেড কক্ষে নিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা করে শাহ আলম। পরে মেয়ের চিৎকারে তার বন্ধুরা এগিয়ে এলে সে পালিয়ে বাড়ি ফিরে আসে। এ ঘটনার পর আজ বিষয়টি জানাজানি হলে এলাকাবাসী শাহ আলমকে গণধোলাই দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করে।

এ ব্যাপারে আশুলিয়া থানার উপপরিদর্শক মিরাজ হোসেন বলেন, শিশুকে ধর্ষণের ঘটনায় অভিযুক্তকে আটক করা হয়েছে। এছাড়া শিশুটির স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য তাকে ঢামেক ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় একটি মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান তিনি।

ঢাকাটাইমস/১১জুলাই/ইএস

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :