ফরিদপুরে ডুবেছে ফসল, বিপাকে পদ্মাপাড়ের কৃষক

ফরিদপুর প্রতিনিধি, ঢাকাটাইমস
 | প্রকাশিত : ২০ জুলাই ২০১৯, ১৯:০১

ফরিদপুরে পদ্মার পানি বেড়ে যাওয়ায় নতুন নতুন এলাকা প্লাবিত হচ্ছে। পাশাপাশি ক্ষতি হচ্ছে ক্ষেতের ফসল। এতে জেলার তিন উপজেলার নিম্নাঞ্চলের বিস্তৃর্ণ এলাকার ফসলের ক্ষেত তলিয়ে গেছে। এতে বিপাকে পড়েছেন পদ্মাপাড়ের কৃষকরা।

দেশের উত্তরঞ্চলের বন্যা পরিস্থিতি অবনতির পরপরই উজানের পানি মধ্যঞ্চলে আসতে শুরু করে। ফলে বৃহত্তর ফরিদপুরসহ আশপাশের জেলাগুলোর নদ-নদীর পানি বাড়তে শুরু করেছে। গত কয়েক দিন ধরে প্রতি মুহূর্তেই পদ্মার পানি হু হু করে বেড়েই চলছে।

ফরিদপুর কৃষি সম্প্রসারণ অফিস সূত্রে জানা গেছে, গত চার দিনে শুধু জেলা সদর উপজেলার তিনটি ইউনিয়নে বোনা আমান ক্ষেত দুই হাজার ৪৬ এবং আউশ ধানের ক্ষেত এক হাজার ৯৮ হেক্টর জমি বন্যার পানিতে তলিয়ে গেছে। সবজি ক্ষেত তলিয়েছে ১২৪ হেক্টর।

ফরিদপুরের গোয়ালন্দ পয়েন্টের গেজ রিডার ইদ্রিস আলী জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় ওই পয়েন্টে পদ্মা নদীর পানি আরও ১২ সেন্টিমিটার বৃদ্ধি পেয়েছে। ফলে শনিবার সকাল ৬টায় ওই পয়েন্টে পদ্মা নদীর পানি বিপৎসীমার (৯ দশমিক ৩১) উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। যা বিদৎসীমার ৬৬ সেন্টিমিটার ওপরে রয়েছে।

সরেজমিনে ফরিদপুরের সদর উপজেলার নর্থচ্যানেল ইউনিয়নের বন্যাকবলিত এলাকার মানুষের সঙ্গে কথা বললে তারা জানান, ‘বন্যার পানি আমাদের ফসলের ক্ষেত নষ্ট করছে, আউশ-আমন ধান কাটার সময় পাইনি। সব তলিয়ে গেছে।’

নর্থচ্যানেলের কৃষক আলম সরকার, ছমির শেখ জানান, আউশ-আমন ধান বুনেছিলাম, বন্যায় সব তলিয়ে গেছে। পানিতে আমাদের নিঃস্ব করে দিয়েছে।
অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক রোকসানা রহমান জানান, কৃষি ক্ষেত্রে যারা ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে তাদের তালিকা করে বন্যার পরে পুনর্বাসন করা হবে। সরকারের এ বিষয়ে নিদের্শনা রয়েছে।

(ঢাকাটাইমস/২০জুলাই/এলএ)

সংবাদটি শেয়ার করুন

বাংলাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

বিশেষ প্রতিবেদন বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি বিনোদন খেলাধুলা
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত

শিরোনাম :